মেইন ম্যেনু

বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিতে আবারো শ্রমিক আন্দোলনের আল্টিমেটাম

দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিতে আবারো শুরু হচ্ছে শ্রমিক আন্দোলনের আল্টিমেটাম। বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিসহ তেল গ্যাস খনিজ সম্পদ কর্পোরেশন (পেট্রবাংলা) অধিনস্থ ১০টি কোম্পানীর শ্রমিক লীগ ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় কমিটির ঘোষিত ৪ দফা দাবী বাস্তবায়নের দাবীতে গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১০টায় দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়ন শ্রমিক কার্যালয়ে আলোচনা সভায়, এই কর্মসূচী ঘোষণা করেন, শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়নের সভাপতি ও শ্রমিক লীগ ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় কমিটি সহ-সভাপতি আবুল কাশেম সিকদার।

আবুল কাশেম সিকদার বলেন, পূর্ব ঘোষিত আলটিমমেটাম অনুযায়ী এই ৩০শে জুলাই মধ্যে দাবী পূরণ না হলে ১ আগস্ট থেকে শ্রমিকেরা কঠোর আন্দোলনের যেতে বাধ্য হবে বলে তিনি কর্তৃপক্ষকে সর্তক করেন।

শ্রমিকলীগ ফেডারেশনের সহ-সভাপতি আবুল কাশেম সিকদার বলেন, কেন্দ্রীয় কমিটি ঘোষিত দাবীগুলো হচ্ছে, ১। কোম্পানীর জনবল কাঠামো হতে আউট সোর্সিং পদ্ধতি বাতিল করে কর্মরত সকল অস্থায়ী এবং আউট সোর্সিং কর্মচারীদের স্থায়ী করণের ব্যবস্থা করা ও কর্মকর্তা কর্মচারীদের শুন্য পদে নিয়োগ প্রদান। ২. বড়পুকুরিয়া কোল মাইন কোম্পানী লিঃ এর কর্মরত সকল কর্মকর্তা কর্মচারীদের জন্য পেনশন সুবিধা বাস্তবায়ন করা। ৩. দেশের সকল কয়লা খনি বড়পুকুরিয়া কোল মাইন কোম্পানীর লিঃ মাধ্যমে বাস্তবায়ন করা ও ৪. কোম্পানীর টেনিক্যাল কাজের সাথে সরাসরি সম্পৃক্ত কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের উভয়ে বৈদেশিক প্রশিক্ষনের ব্যবস্থা করার দাবী বাস্তবায়নের লক্ষ্যে পেট্রোবাংলা অধিনস্থ ১০টি কোম্পানীর শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়ন যৌথ ভাবে এই কর্মসূচি বাস্তবায়নের দাবী জানান।

শ্রমিক ফেডারেশন উ্ল্লখিত দাবী বাস্তবায়নের লক্ষ্যে অনুষ্ঠিত সভায় লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, বড়পুকুরিয়া শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়নের সভাপতি ও শ্রমিকলীগ ফেডারেশনের সহ-সভাপতি আবুল কাশেম শিকদার। এসময় শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়নের সিনিয়র সহ-সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম, সহ-সভাপতি আমিনুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক, কোষাধ্যক্ষ আব্দুল নুর শাহীন, কার্য্যকারী সদস্য আজগর আলীসহ শ্রমিক ইউনিয়নের সকল সদস্যগণ উপস্থিত ছিলেন।

এসময় আবুল কাসেম সিকদার বলেন ৩০শে জুলাইয়ের মধ্যে শ্রমিকলীগ ফেডারেশনের ঘোষিত ৪দফা দাবী বাস্তবায়নে জন্য আহব্বান জানান। অন্যথায় কঠোর কর্মসূচী গ্রহনের হুশিয়ারী করেন।