মেইন ম্যেনু

ভারতের মাটিতে নিরাপত্তাহীনতায় বাংলাদেশ!

ভারতে আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে পাকিস্তানের পর বাংলাদেশ ও আফগানিস্তান দলও নিরাপত্তা শঙ্কায় ভুগছে। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড ‍ইতোমধ্যে জানিয়ে দিয়েছে, সে দেশের সরকারের অনুমতি পেলেই ভারত সফর করবে আফ্রিদিরা। তবে বিশ্বকাপের জন্য দল ঘোষণা করেছে পাকিস্তান।

বেশ কিছুদিন আগে মুম্বাইয়ে ভারত আর পাকিস্তানের দ্বি-পাক্ষিক সিরিজের ব্যাপারে আলোচনা হওয়ার কথা ছিলো। আলোচনাটি ভেস্তে যায় দেশটির ধর্মীয় ডানপন্থি কয়েকটি রাজনৈতিক দলের কারণে। দলগুলোর মতে পাকিস্তানের বিপক্ষে কোন ম্যাচই খেলতে পারবে না ভারত।

এরপর থেকেই দু’দেশের ক্রিকেট নিয়ে শুরু হয় টানাপোড়ন। শঙ্কা জাগে ভারতের মাটিতে পাকিস্তানের বিশ্বকাপ খেলা নিয়েও। আর পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডও বেশ কয়েকবার জানিয়েছে, ভারতের মাটিতে তারা নিরাপদ নয়।
এদিকে পাকিস্তান বিশ্বকাপে গ্রুপপর্বে নিজেদের প্রথম ম্যাচ খেলবে ১৬ মার্চ কলকাতা। পাকিস্তান দলকে আশ্বস্ত করে ইতোমধ্যে কলকাতায় বাড়ানো হচ্ছে নিরাপত্তা। কলকাতা ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন থেকে জানা যায়, পুরো স্টেডিয়াম চত্ত্বরে বাড়তি নিরাপত্তার পাশাপাশি থাকবে ট্যাঙ্ক।

বাংলাদেশ এবারের আসরে সরাসরি মূলপর্বে খেলতে পারছে না। খেলতে হবে বাছাইপর্বে। আর বাছাই পর্বে গ্রুপ ‘এ’তে থাকা টাইগাররা উত্তীর্ণ হতে পারলে কলকাতাতেই খেলা হতে পারে গ্রুপ ওয়ানে থাকা পাকিস্তানের বিপক্ষে।
এদিকে কলকাতার স্টেডিয়াম ইডেন গার্ডেনে একের পর এক পুলিশি পরিদর্শন হচ্ছে। যা খবর, তাতে পাকিস্তান টিমকে নিয়ে নিরাপত্তাব্যবস্থা আরও নিশ্ছিদ্র করা হবে। কলকাতার দৈনিক আনন্দবাজারের সূত্র মতে, পুলিশ নাকি পাকিস্তান ছাড়াও আফগানিস্তান, বাংলাদেশ টিমের নিরাপত্তা নিয়েও চিন্তিত। ঠিক হয়েছে তিনটে টিমকেই রাখা হবে এক হোটেলে, আলাদা আলাদা হোটেলে নয়।

-বাংলানিউজ