মেইন ম্যেনু

ভারতের সেই গ্রামে পুরুষ কেন নিষিদ্ধ?

নারী-পুরুষ মিলেই একটি গ্রাম। পুরুষ বা নারী ছাড়া গ্রাম হয় কি করে? এমন আজব কথা কেউ কি কখনো শুনেছেন যে গ্রামে পুরুষ প্রবেশ নিষেধ। না শুনলেও এবার শুনন সেই গ্রামে পুরুষ প্রবেশে কেন বাধা।

ভারতের হিমাচল প্রদেশের কাসোল গ্রাম। অবস্থান ভারতে হলেও এ গ্রামে ভারতীয় পুরুষরা প্রবেশ করতে পারেন না। এ গ্রামের বাসিন্দাদের অধিকাংশই বিদেশি নারী।

কাসোল গ্রামে থাকেন মূলত ইসরাইলি পর্যটকরা এবং এর সিংহভাগই নারী। সব বয়সী নাগরিকদের সেদেশে বাধ্যতামূলক সেনাবাহিনীর প্রশিক্ষণ নিতে হয়। ট্রেনিং শেষে ইসরাইলিরা ক্লান্ত হয়ে লম্বা ছুটি কাটাতে এই গ্রামে আসেন একটু বিশ্রাম নিতে।

এ তথ্য জানা গেছে ভাস্কর ডট কমে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এ গ্রামে কখনো ঘুরতে গেলে মনে হবে ইসরাইলে এসেছেন আপনি। কারণ প্রত্যেকেই এখানে হিব্রু ভাষায় কথা বলেন।

ভারতীয় পুরুষদের এ গ্রামে ঢুকতে না দেয়ার কারণ হিসেবে পর্যটকরা বলছেন, ভারতীয় তরুণরা বিদেশি নারী পর্যটকদের উত্ত্যক্ত করত। সে কারণেই ওই গ্রামে ভারতীয় পুরুষদের প্রবেশ নিষিদ্ধ করা হয়েছে। কোনো পুরুষ যদি ওই গ্রামে কোনোভাবে ঢুকে পড়ে তাকে কেউই আশ্রয় দেয় না।

ইসরাইলিদের বিশ্বাস, কাসোল গ্রাম তাদের পূর্বপুরুষরা ১০০ বছর আগে আবিষ্কার করেছিলেন। সেই গ্রামে ঘর ভাড়া একদম কম। দিনে মাত্র ৩০০ টাকা। এই গ্রামে সাইবার ক্যাফের ব্যবসাও বেশ রমরমা।