মেইন ম্যেনু

ভিক্ষা দিয়ে বিপদে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী

অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্নের রাস্তা দিয়ে বৃহস্পতিবার যাওযার সময় এক ভিক্ষুককে পাঁচ পাউন্ড ভিক্ষা দিয়ে বিপদে পড়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী ম্যালকম টার্নবুল। প্রধানমন্ত্রীর এহেন কাণ্ডে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে রীতিমতো সমালোচনার ঝড় বইছে।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভিক্ষুকের সামনে থাকা কফি কাপে পাঁচ পাউন্ড গুঁজে দেওয়ার ছবিটি বৃহস্পতিবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট করা হয়। এরপরই সমালোচকদের একটি অংশ প্রধানমন্ত্রী ‘কিপটা’ হিসেবে আখ্যা দিয়েছে। তাদের ভাষ্য প্রধানমন্ত্রীর অপর হাতে যথেষ্ট অর্থ ছিল। এ ছাড়া ব্যক্তিগতভাবে টার্নবুল বেশ ধনী। তার মতো এমন মানুষের একজন ভিক্ষুককে পাঁচ পাউন্ড দেওয়া শোভা পায় না। আবার সমালোচকদের কারো কারো মতে, প্রধানমন্ত্রী ক্যামেরার সামনে নিচের মহত্ব প্রচার করার জন্যই এ কাজ করেছেন।

অপরদিকে আরেকটি দলের মতে, এভাবে ভিক্ষুককে অর্থ দেওয়ার মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী দরিদ্রতাকে সমর্থন জানিয়েছেন। মেলবোর্নের মেয়র রবার্ট ডয়লি বলেছেন, ভিক্ষুককে সহযোগিতার মাধ্যমে তাদের মাদক নেওয়ার অভ্যাস ও দারিদ্র্যকে সমর্থন করা হয়। তিনি প্রধানমন্ত্রীকে ভিক্ষা দেওয়ার পরিবর্তে দাতব্য সংস্থা খুলে বসার পরামর্শ দিয়েছেন।

শেষ পর্যন্ত শুক্রবার সমালোচকদের কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করেছেন টার্নবুল। থ্রিএডব্লিউ নামে মেলবোর্নের একটি রেডিওকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘ আমি ওই লোকটির প্রতি দুঃখবোধ করছিলাম। মানবিক কারণে তাকে ভিক্ষা দিয়েছিলাম। আমার আচরণে কেউ কষ্ট পেয়ে থাকলে আমি ক্ষমাপ্রার্থী।’