মেইন ম্যেনু

মধ্যপ্রাচ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা যুক্তরাষ্ট্রের

সৌদি আরবের শিয়া নেতা নিমর আল নিমরের শিরশ্ছেদের ঘটনায় গোটা মধ্যপ্রাচ্যে সাম্প্রদায়িক উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়তে পারে বলে আশঙ্কা ব্যক্ত করেছে যুক্তরাষ্ট্র। মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তর এ অঞ্চলের নেতাদের প্রতি উত্তেজনা কমিয়ে আনার উদ্যোগ গ্রহণেরও আহ্বান জানিয়েছে।

শনিবার ওই নেতার শিরশ্ছদের সংবাদ ছড়িয়ে পড়ার পর তেহরানের বিক্ষুব্ধ জনতা শনিবার রাতে সৌদি দূতাবাসে অগ্নিসংযোগ করে। তারা দূতাবাসের আসবাবপত্রে আগুন ধরিয়ে দেয়। পরে পুলিশ এসে বিক্ষোভকারীদের সরিয়ে দেয়। প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে বিবিসি জানিয়েছে, বিক্ষোভের সময় ইরানের আধাসামরিক বাহিনীর স্বেচ্ছাসেবী সদস্যদেরও সৌদি দূতাবাস লক্ষ্য করে পেট্রল বোমা ছুড়ে মারতে দেখা গেছে।

এর আগে শিয়া নেতার মৃত্যুদণ্ডের তীব্র সমালোচনা করেছে ইরান, ইরাক ও বাহরাইন। যার প্রেক্ষিতে যুক্তরাষ্ট্রের ওই সতর্ক বার্তা। সন্ত্রাসী তৎপরতার দায়ে সৌদি সরকার সম্প্রতি যে ৪৭ জনের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করে তার মধ্যে ছিলেন শিয়া নেতা নিমরও। সৌদি রাজ পরিবারের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করার ঘটনায় তাকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়।

এদিক মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র জন কিবরি এক বিবৃতিতে সৌদি সরকারের প্রতি দেশে মানবাধিকার রক্ষা এবং স্বচ্ছ ও ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠার আহ্বান জানিয়েছেন। একই সঙ্গে দেশের ভিন্নমতাবলম্বীদের শান্তিপূর্ণভাবে মত প্রকাশের সুযোগ দেয়ারও দাবি জানিয়েছেন তিনি।

শিয়া নেতা নিমরের মৃত্যুদণ্ডের প্রতিবাদে শুধু ইরান নয় সৌদি আরবের পূর্বাঞ্চলীয় শিয়া অধ্যুষিত প্রদেশেও বিক্ষোভি ছড়িয়ে পড়েছে। এ ঘটনায় ইরাক ও বাহরাইনসহ আরো কয়েকটি দেশের শিয়া ধর্মাবলম্বীরাও বিক্ষোভ করেছে।