মেইন ম্যেনু

থার্টি ফার্স্টের অনুষ্ঠান দিনেও করা যায়

মন্ত্রীদের সতর্ক করলেন প্রধানমন্ত্রী

দেশকে অস্থিতিশীলতা করার পেছনে যুদ্ধাপরাধীদের হাত রয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এজন্য মন্ত্রিপরিষদ সদস্যদের সতর্ক দৃষ্টি রাখার নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

সোমবার মন্ত্রিপরিষদ বৈঠকে অনির্ধারিত আলোচনায় প্রধানমন্ত্রী এ নির্দেশ দেন।বৈঠকে উপস্থিত এক মন্ত্রী নাম প্রকাশ না করার শর্তে এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন জঙ্গি আস্তানার সন্ধান ও দেশকে অস্থিতিশীল করার চেষ্টার পেছনে যুদ্ধাপরাধীদের ইন্ধন থাকতে পারে। এছাড়া এসব ঘটনার পেছনে বিদেশিরাও জড়িত। আমরা সতর্ক আছি। তারা যত চেষ্টাই করুন দেশকে অস্থিতিশীল করতে পারবে না। এজন্য আরও শক্তিশালী পদক্ষেপ নিতে হবে।

থার্টি ফার্স্টের অনুষ্ঠান দিনেও করা যায়
থার্টি ফার্স্টের অনুষ্ঠান কেবল রাতেই করতে হবে, এমন কথা নেই, দিনেও এ অনুষ্ঠান করা যায়। নিয়ন্ত্রিত কর্মসূচির মাধ্যমে অনুষ্ঠান উদযাপন করতে হবে।

সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে অনানুষ্ঠানিক আলোচনায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ কথা বলেন। খ্রিস্টীয় নতুন বছরকে স্বাগত জানাতে থার্টি ফার্স্টের অনুষ্ঠান নিয়ন্ত্রিত করার পরামর্শ দিয়েছেন। তার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

বৈঠক সূত্রে জানা গেছে, প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, ‘থার্টি ফার্স্টের অনুষ্ঠান কর্মসূচি একটি নিয়ন্ত্রিত পরিবেশের মধ্যে যেন উদযাপন হয় সেদিকে খেয়াল রাখবেন। কোনো বিশৃঙ্খলা বা অস্থিতিশীল পরিস্থিতি যেন তৈরি না হয় সে ব্যাপারেও সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। মনে রাখতে হবে, আমাদের দেশকে নিয়ে দেশি-বিদেশি নানা ষড়যন্ত্র-চক্রান্ত চলছে।’

আইন-শৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্ব শুধু স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নয়। সবাইকেই এ ব্যাপারে সতর্ক থাকতে হবে। সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখার উদ্যোগ নেয়ার আহ্বানও জানান প্রধানমন্ত্রী।

এদিকে নিরাপত্তার স্বার্থে রাজধানীতে উন্মুক্তস্থানে সন্ধ্যায় সমাবেশ বা উৎসব উৎসব নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছে ঢাকা মেট্টোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)।