মেইন ম্যেনু

নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা

মাগুরায় আ’লীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে ৪ পুলিশসহ আহত ৩০

মাগুরা প্রতিনিধি ॥ মাগুরার সদরের মঘি ইউনিয়নের মহিষাডাঙ্গা গ্রামে বুধবার নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতায় ৪ পুলিশ সদস্যসহ অন্তত ৩৫ আহত হয়েছে । এ সময় ১৫ টি দোকান ও বাড়ী ঘর ভাংচুর লুটপাট হয়।

সদর হাসপাতালে ভর্তি মহিষাডাঙ্গার শাহরুল ইসলাম,তারা বিবিসহ অন্যরা জানান,গত ৩১ মার্চ অনুষ্ঠিত ইউপি নির্বাচনে মঘি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ নেতা শওকত আলী মঘি ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের মেম্বর নির্বাচিত হন। জয় পরাজয় নিয়ে তার সাথে প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী অপর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ নেতা ইমদাদুর রহমানের সমর্থকদের উত্তেজনা চলছিল। এরই এক পর্যায়ে গতকাল বুধবার সকালে উভয় পক্ষ এ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এসময় খবর পেয়ে পুলিশ সেখানে এলে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার মধ্যে পড়ে সদর থানার এস আই মোস্তাফিজুর রহমান, পুলিশ সদস্য আবুল কালাম, ইব্রাহিম আলী, মেহেদী হাসান আহত হয়।

গ্রামবাসীদের মধ্যে তারাবিবি (৬৫),শাহারুল ইসলাম (৩৫), বাচ্চু (২২), হারুন (৪০),মেঘনা (৫০) নামে ৫ জনকে মাগুরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অন্যান্যদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে ৬০ রাউন্ড রাবার বুলেট ছুড়লে ২ জন রাবার বুলেট বিদ্ধসহ প্রায় ৩০ গ্রামবাসী আহত হয়।

মঘি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুল হাই জানান, উভয় পক্ষই সামাজিকভাবে আওয়ামীলীগের রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত। পান খেয়ে পিক ছোঁড়ার ঘটনা নিয়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে এ সংঘর্ষ হয়।

মাগুরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আজমল হুদা জানান, পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ৬০ রাউন্ড বুলেট ছুড়েছে। পরবর্তী সহিংসতা এড়াতে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।