মেইন ম্যেনু

মাছ বেচে ১০ বছরের সঞ্চয়ে হজ করছেন এক নারী

মাছ বেচে ১০ বছরের সঞ্চয়ে হজ করছেন এক নারী। আফ্রিকার দেশ উগান্ডা। কাম্পালা উগান্ডার রাজধানী ও বৃহত্তম নগরী।

সেই উগান্ডার এক নারী মনের কোণে লুকিয়ে রেখেছিলেন এক মহৎ স্বপ্ন।

তার স্বপ্ন তিনি হজ পালন করবেন। কিন্তু চাইলেই তো আর হয় না। এ জন্য দরকার প্রচুর টাকা। তাই ধীরে ধীরে সঞ্চয় করতে লাগলেন মাছ ব্যবসায়ী ওই নারী।

দীর্ঘ ১০ বছরের সঞ্চয় দিয়ে এবার তিনি হজ পালনের জন্য মক্কায় এসেছেন। খবর : ডেইলি সাবাহর

উগান্ডার জনসংখ্যা প্রায় সাড়ে ৩ কোটি। এর মধ্যে ১৬ শতাংশ মুসলিম।

এবার উগান্ডা থেকে হজ পালন করছেন ৭৫০ জন। তার মধ্যে ৪১৫ জনই নারী। নারীদের মাঝে ৫৮ বছরের কাসিফাহ নানকুম্বাই হজের জন্য ১০ বছর ধরে টাকা জমাচ্ছিলেন।

গতবার উগান্ডা থেকে হজে গিয়েছিল ৯৫৭ জন। উগান্ডা থেকে হজ করতে লাগে প্রায় ৪,১৫০ ডলার। সেটা অনেকের পক্ষেই সংগ্রহ করা সম্ভব হয় না।

হজ গমন প্রসঙ্গে কাসিফাহ বলেন, ‘পবিত্র মক্কায় যাওয়া, নবী করিম (সা.)-এর রওজা মোবারক জিয়ারত করা, আরাফার ময়দানে হাজির হওয়া আর জমজমের পানি পানের অপেক্ষা আর সইছে না। আমি এখন এতটাই উদ্দীপ্ত যে মনে হচ্ছে, বেশি দেরি হলে আমি হয়ত দম বন্ধ হয়ে মারা যাব।’

কাসিফাহ ২৮ বছর ধরে উগান্ডার রাজধানী কাম্পালার কাছে কালেরবি বাজারে ধূমায়িত মাছের ব্যবসা করছেন। ব্যবসায় খুব আয় না হলেও হজ করার সংকল্প তাকে ওই সামান্য আয় থেকেই সঞ্চয়ে উদ্ধুদ্ধ করেছে। তা দিয়েই এবার পবিত্র হজ করছেন তিনি।