মেইন ম্যেনু

মাথা দুটি, হাত ও পা চারটি : চৌগাছায় জোড়ালাগা জমজ শিশুর জন্ম

মাথা দুটি, হাত ও পা চারটি। কিন্তু পেট ও বুক জোড়া লাগানো। গতকাল শুক্রবার সকালে যশোরের চৌগাছা উপজেলার একটি বেসরকারি ক্লিনিকে এমন দুটি মেয়েশিশুর জন্ম দিয়েছেন গৃহবধূ রিনা খাতুন।

রিনা খাতুন চৌগাছার উজিরপুর গ্রামের কৃষক মিন্টু হোসেনের স্ত্রী।

জন্ম নেওয়ার পরপরই নবজাতক দুটিকে যশোর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালের শিশু ওয়ার্ডে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

যশোর জেনারেল হাসপাতালের পরামর্শক (শিশু বিশেষজ্ঞ) মাহফুজুর রহমান বলেন, ‘নবজাতক দুটির মাথা আলাদা, পা-হাতও আলাদা। কিন্তু পেট ও বুক জোড়া লাগানো। শরীরের অন্যান্য অঙ্গপ্রত্যঙ্গ (অর্গান) যদি আলাদা থাকে, তবে অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে দুটিকে আলাদা করা সম্ভব হবে। এ চিকিৎসা ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভালো হবে বলে অভিভাবকদের জানানো হয়েছে। কিন্তু অর্থের অভাবে তাঁরা ঢাকায় নিতে পারছেন না। এখন আমরা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে দেখছি। নবজাতক দুটি মোটামুটি সুস্থ রয়েছে।’

নবজাতকের চাচা আকতারুজ্জামান সাংবাদিকদের বলেন, সকালে চৌগাছার একটি বেসরকারি ক্লিনিকে রিনা খাতুন জোড়া লাগানো দুটি নবজাতকের জন্ম দিয়েছেন। মাকে ওই ক্লিনিকে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হলেও নবজাতক দুটিকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হয়। কৃষক মিন্টু হোসেন ও গৃহিণী রিনা খাতুনের আরও তিনটি সন্তান রয়েছে।