মেইন ম্যেনু

‘মাদরাসার পাঠ্যবই উগ্রবাদী শিক্ষায় ভরপুর’

মাদরাসার পাঠ্যবই জঙ্গিবাদ এবং উগ্রবাদী শিক্ষায় ভরপুর বলে অভিযোগ করেছেন বাংলাদেশ জমিয়তুল উলামা চেয়ারম্যান ও কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়া ঈদগাহের ইমাম আল্লামা ফরিদ উদ্দিন মাসউদ।

শুক্রবার রাজধানীর খিলগাঁওয়ের ইকরা বাংলাদেশ মিলনায়তনে ‘সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ প্রতিরোধ দিবস’ পালন উপলক্ষে এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ অভিযোগ করেন। বাংলাদেশ জমিয়তুল উলামা এ সভার আয়োজন করে।

ফরিদ উদ্দিন মাসউদ বলেন, মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড সরকারি পয়সায় চলে, সরকারি পয়সায় সিলেবাস, তাদের পাঠ্যবইতে জঙ্গিবাদ এবং উগ্রবাদী শিক্ষায় ভরপুর। একাধিক বই, একাধিক ক্লাসে এই জঙ্গিবাদী এবং উগ্রবাদী চেতনায় ভরপুর।

শিক্ষামন্ত্রীর সমালোচনা করে ফরিদ উদ্দিন মাসউদ বলেন, আমাদের শিক্ষামন্ত্রী থাকেন কোথায়? কোন দেশে বসবাস করেন আমি জানি না, আর আমাদের শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে যারা আছেন- একটু বাংলাদেশের মাটিতে পা রাখুন। আমি অনুরোধ রাখি, আপনাদের নামে যে বই গভর্নমেন্টের পয়সায় ছাপা হয়েছে, এ বইগুলো একটু পড়ে দেখুন।

তিনি আরো বলেন, জঙ্গিবাদ শিক্ষা দেব, জঙ্গিবাদের চেতনা লালন করবো অথচ জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে কথা বলবো, আইন করবো, এসব দিয়ে কখনই জঙ্গিবাদ প্রতিরোধ করা সম্ভব হবে না।

জঙ্গি তৈরির পেছনে শিক্ষাব্যবস্থাকে দায়ী করে ফরিদ উদ্দিন মাসউদ বলেন, শিক্ষাব্যবস্থা ব্যর্থ, এর প্রমাণ আজকে উচ্চশিক্ষিত হওয়ার পরও তরুণরা নিষ্ঠুর ও বিভ্রান্ত পথে যাচ্ছে। শিক্ষাব্যবস্থাকে ঢেলে সাজানো দরকার। প্রতিটি স্তরে ইসলাম ও ধর্মের নৈতিকতা শিক্ষাকে মূল শিক্ষা হিসেবে রাখা দরকার। না করা হলে এসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে এক দু’জন নয় হাজার হাজার জঙ্গি, উগ্রবাদী বের হবে।

বাংলাদেশ জমিয়তুল উলামা সেক্রেটারি জেনারেল মাওলানা আবদুর রহিমের সভাপতিত্বে সভায় আরো বক্তব্য দেন, ইকরা বাংলাদেশের প্রিন্সিপাল মাওলানা আরিফ উদ্দিন মাহুমুদ, সার্কিট হাউস মসজিদের খতীব আল্লামা আরীফ উদ্দীন মারুফ, বাইতুল মারুফ রামপুরার খতীব আল্লামা ইয়াহইয়া মাহমূদ, মাওলানা দেলোয়ার হোসাইন সাইফী, মাওলানা ইমদাদুল্লাহ কাসেমী, ঢাবি শিক্ষক মাওলানা হোসাইনুল বান্না, মাওলানা সদরুদ্দীন মাকনুন প্রমুখ।