মেইন ম্যেনু

মাদ্রাসায় ইংরেজি, বিজ্ঞান না পড়ালে স্কুলের মর্যাদা নয়

মাদ্রাসায় ইংরেজি, গণিত ও বিজ্ঞান পড়ানো না হলে স্কুলের মর্যাদা দেওয়া হবে না। এমন সিদ্ধান্ত নিয়ে সরকারি নির্দেশিকা জারি করেছে মহারাষ্ট্রের বিজেপি-শিবসেনা জোট সরকার।

মহারাষ্ট্র সরকারের সংখ্যালঘু উন্নয়ন দফতরের মন্ত্রী একনাথ খাডস বলেছেন, ‘সংবিধানে প্রতিটি শিশুকে প্রচলিত শিক্ষাদানের অধিকার দেওয়ার কথা বলা হলেও, মাদ্রাসাগুলোতে তা উপেক্ষিত।’

খাড়সের দাবি, মাদ্রাসাগুলোতে ধর্মীয় শিক্ষা ছাড়া, প্রচলিত শিক্ষা দেওয়া হয় না। প্রচলিত শিক্ষা না পেয়ে প্রতিযোগিতামূলক ক্ষেত্রে পিছিয়ে পড়ছে সংখ্যালঘু ছাত্রছাত্রীরা। তাদের ভবিষ্যতের কথা ভেবেই এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

মহারাষ্ট্রে ১৮৯৫টি মাদ্রাসা নথিভুক্ত আছে। যেখানে ২ লাখ শিক্ষার্থী পড়াশোনা করে। এখন মাদ্রাগুলো যদি দাবি না মানে তাহলে বিপুলসংখ্যক ছাত্রছাত্রীর ভবিষ্যত নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে কংগ্রেস।

মহারাষ্ট্র সরকারের এ সিদ্ধান্তকে অগণতান্ত্রিক বলে মন্তব্য করেছেন জমিয়তে উলেমায়ে হিন্দের সাধারণ সম্পাদক মৌলানা মহমুদ মদানি।

অল ইন্ডিয়া মজলিস এ ইত্তেহাদুল মুসলেমিনের সভাপতি আসাউদ্দিন ওয়াইসির দাবি, বহু মাদ্রাসায় অঙ্ক, ইংরেজি এবং বিজ্ঞান পড়ানো হয়। সেই সব মাদ্রাসার ছাত্ররা সিভিল সার্ভিস পরীক্ষায় পাস করেছেন।