মেইন ম্যেনু

মায়ের কষ্ট দেখে অসম্ভব কাজকে সম্ভব করলেন পুত্র

দূর থেকে মা’র পানি আনতে কষ্ট হয়৷ এমন হলে আপনি কী করতেন? নিজে কয়েক মাইল হেঁটে জল নিয়ে আসতেন? হয়তো এমনটাই ভাবছেন৷ আমার, আপনার সাধারণ ভাবনায় এই সমস্যার সমাধান অন্তত এমনটাই হতে পারত৷ কিন্তু ১৭ বছরের পবন কুমার কিন্তু অন্য কিছুই ভাবলেন তার মা’র সুবিধার জন্য৷ পুরো একটা কুয়ো খুঁড়ে ফেললো নিজের বাড়ির সামনে৷

কর্ণাটকের সত্তিসারা গ্রামে জলকষ্টে ভুগছেন গ্রামবাসীরা৷ মধ্যবিত্ত পরিবারগুলি নিজেদের বাড়িতে শ্রমিক দিয়ে কুয়ো খুঁড়িয়ে নিতে সমর্থ হলেও, আর্থিক অনটনে ভোগা এই পরিবারের পক্ষে শ্রমিকদের দিয়ে কুয়ো তৈরি করা ছিল অসম্ভব৷ আর প্রতিবেশীরাও এই দরিদ্র পরিবারকে পানি দিয়ে সাহায্য করার প্রয়োজন বোধ না করায় পবনের মা’কে কয়েক মাইল হেঁটে যেতে হত পানি আনতে৷

কিন্তু মা’র এই কষ্ট যেন চোখে দেখতে পারছিলেন না পবন৷ তাই নিজে দায়িত্ব নিয়ে একা হাতে ১০ দিনের মধ্যে ৫৫ ফুটের কুয়ো খুঁড়ে ফেলল সে৷ পানীয় জল বিশেষজ্ঞ’র পরামর্শ নিয়ে ৪৫ দিনের মধ্যে কুয়োর পানি পান করার যোগ্যও করে তুললো পবন৷ সত্যি! পবনের এমন উদ্যোগ প্রশংসার দাবি রাখে৷