মেইন ম্যেনু

মৌসুমি হামিদের অগ্নি পরীক্ষা

ছোটপর্দার অনেক অভিনেত্রী বড়পর্দায় অর্থাৎ সিনেমাতে অভিনয় করে টিকতে পারেননি। অনেকেই শত চেষ্টা করে রুপালী পর্দার দর্শকদের মনে আশার সঞ্চার যোগাতেও ব্যর্থ হন।

তবে এবার ছোটপর্দার গন্ডি পেরিয়ে বড়পর্দায় নিজের শ্রেষ্ঠত্ব প্রমাণ করতে আগামী ৭ আগষ্ট রূপালী পর্দায় অভিষেক হতে যাচ্ছে লাক্সতারকা, সময়ের আলোচিত অভিনেত্রী মৌসুমি হামিদের।

সাফিউদ্দিন সাফি পরিচালিত ‘ব্ল্যাক মানি’ ছবিতে মৌসুমির বিপরীতে সাইমন সাদিক। ছবিটি ইতোমধ্যে সেন্সর ছাড়পত্র ও বাংলাদেশ চলচ্চিত্র প্রযোজক-পরিবেশক সমিতি থেকে মুক্তির জন্য অনুমোদন পেয়েছে। মৌসুমী ছাড়াও এতে আরো অভিনয় করেছেন কেয়া, সাদেক বাচ্চু, শশী, আফজাল শরীফ ও মিশা সওদাগর।

এ প্রসঙ্গে মৌসুমী হামিদ বলেন, ‘এ ছবিতে আমি নিজেকে যথাযথভাবে উপস্থাপনের শতভাগ চেষ্টা করেছি। আশা করি, ভালো কিছু হবে।’ তিনি আরো বলেন, ‘চলচ্চিত্রেই স্থায়ী হওয়ার স্বপ্ন নিয়ে মিডিয়ায় এসেছি। তাই ছবিটি আমার স্বপ্ন পূরণে বিশেষ ভূমিকা পালন করবে বলে মনে করছি।’

এদিকে একই মাসের ১৪ আগস্ট অনন্য মামুনের ‘ব্ল্যাক মেইল’ ছবিটিও মুক্তি পাচ্ছে বলে জানা যায়। ছবিতে মৌসুমী হামিদ ছাড়াও অভিনয় করেছেন আনিসুর রহমান মিলন, ববি, মিশা সওদাগরসহ অনেকে।

ছবিটি নিয়ে মৌসুমী বলেন, ‘এ ছবিতে চমক থাকবে। তাছাড়া গল্পের ভ্যারিয়েশন তো রয়েছেই।’ তিনি আরও বলেন,’একই মাসে পরপর আমার দুটো ছবি মুক্তি পাচ্ছে। এটা অনেক বড় পাওয়া তাছাড়া আমার বিশ্বাস আমি দর্শকদের মনে ঠাই পাবো এ দুটো ছবির মাধ্যমে।’

এছাড়া, মৌসুমির হাতে ‘শোধ প্রতিশোধ’ ছাড়া অন্য ছবিগুলোর মধ্যে রয়েছে প্রশান্ত অধিকারীর ‘হাডসনের বন্দুক’, আবু শাহেদ ইমনের ‘জালালের গল্প’, সাফিউদ্দীন সাফির ‘পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেমকাহিনী ২’, হাসান ফুয়াদের ‘লুকোচুরি প্রেম’, মাসুম পারভেজ রুবেলের ‘মিশন সিক্স’ এবং শামীম আহমেদ রনির ‘মেন্টাল’। তা ছাড়া তার অভিনীত অনিমেষ আইচের ‘না মানুষ’ ছবিটির শুটিং দীর্ঘদিন ধরে বন্ধ রয়েছে।