মেইন ম্যেনু

যুগ্ম প্রধান পেটালেন নারী কর্মচারীকে

শিল্প ও শক্তি বিভাগের যুগ্ম-প্রধান মো: লিয়াকত আলী চতুর্থ শ্রেনীর নারী কর্মচারিকে মারধর করেছেন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে পরিকল্পনা কমিশনে চতুর্থ শ্রেনীর কর্মকর্তাদের মধ্যে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে। লিয়াকত আলীর বিচারের দাবিতে পরিকল্পমন্ত্রী আ হ মমুস্তফা কামালের কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েছে তারা।

মঙ্গলবার সকাল ১১টায় পরিকল্পনা কমিশনের শিল্প ও শক্তি বিভাগে অফিস সহকারী রেহেনা বেগমকে তিনি মারধর করেন।

মন্ত্রীর কাছে জমা দেওয়া লিখিত অভিযোগে দেখা যায়, রেহেনা বেগম শিল্প ও শক্তি বিভাগের সহকারি প্রধান হালিমা বেগমের এর দপ্তরে কাজ করে। যুগ্ম প্রধান মো: লিয়াকত আলী আমার দপ্তরে ঢুকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজসহ ও শারিরীকভাবে নির্যাতন করে। চেয়ার নিয়ে আমার দিকে তেড়ে এসে মেরে ফেলার হুমকি দেয়।

অভিযোগে আরো বলা হয়, সে সময় লিয়াকত আলী বলে তোর মত মহিলারদের মারার বা শারিরীক নির্যাতনের অভ্যাস আছে আমার। এ কথা বলে চড় মারতে থাকেন। তোকে মারলে আমার কেউ কিছু করতে পারবে না।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ঘটনা এক প্রত্যক্ষদর্শী জানান, রেহেনা সহকারি প্রধান হালিমার দপ্তরে কাজ করে। যুগ্ম প্রধানের একান্ত সহকারি এসে রেহেনাকে একটি কাজের কথা বলেন। তখন রেহেনা বলে আমি আমরা ম্যাডামের কাজ করে আসছি। পরে এ কথা লিয়াকত আলীকে জানালেন তিনি নিজে এসে রেহেনাকে মারধর করেন বলে জানান তিনি।

এ সময় রেহেনা বেগম তার উপর নির্যাতনকারীর বিচারের দাবি জানান মন্ত্রীর কাছে। এর আগে মালা পারভীন ও মোছা. পারভীন নামে দুই জন নারী অফিস সহায়ক পেটানোর অভিযোগ আছে বলে জানান কর্মচারীরা।