মেইন ম্যেনু

যে কারণে হাসিখুশি ছেলে পছন্দ করে মেয়েরা

ছেলেদের মধ্যে যে জিনিসটি মেয়েদের সব চাইতে বেশি আকর্ষণ করে তা হলো প্রাণোচ্ছলতা ও হাসিখুশি ব্যক্তিত্ব। প্রথম নজরেই এই ধরণের ব্যক্তিত্ব সম্পন্ন ছেলের প্রেমে পড়ে যান বেশিরভাগ মেয়েরা। এর পিছনে রয়েছে অনেক কারণ।

হাসিখুশি ছেলেরা অনেক বেশি সামাজিক হয়

হাসিখুশি ও প্রাণোচ্ছল ব্যক্তিত্বের ছেলেরা অনেক বেশি সামাজিক হয়ে থাকেন। এতে করে মেয়েদের নিজের প্রেমিককে কারো সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়ার সময় চিন্তা করতে হয় না যে তার প্রেমিকটি কারো কথায় মন:ক্ষুন্ন হতে পারেন।

প্রেমিকার বন্ধুদের সাথে খুব ভালো ভাবে মিশতে পারে

নিজের বন্ধু বান্ধবের সাথে সম্পর্ক নষ্ট হয়ে যাওয়া কেউই পছন্দ করেন না। প্রেম কিংবা বিয়ে হলে মেয়েরা নিজের বন্ধু বান্ধবের কাছ থেকে অনেক দূরে সরে যান যদি তার প্রেমিক বা স্বামীটি খুব বেশি হাসিখুশি ব্যক্তিত্বের মানুষ না হলে। কারণ বন্ধু বান্ধবের সাথে না মিশতে পারলে তারা একটি সময় দুরেই চলে যান। তাই মেয়েরা এমন ছেলে পছন্দ করেন যারা তার সাথে সাথে তার বন্ধুদের সাথে মিশে যেতে পারেন।

প্রেমিকার মুখে খুব সহজেই হাসি ফোটাতে পারে

একজন মজার মানুষের ব্যক্তিত্বই এমন থাকে যিনি সকলের মুখে খুব সহজে হাসি ফোটাতে পারেন। আর মেয়েরা সাধারণত সেই ছেলেদের প্রেমে পড়ে যান যিনি তার মুখে হাসি ফোটাতে পারেন।

এরা অনেক আত্মবিশ্বাসী হয়

প্রাণোচ্ছল ও হাসিখুশি ব্যক্তিত্বের মানুষেরা অনেক বেশি আত্মবিশ্বাসী হয়ে থাকেন। তিনি সামাজিক বলে সকলেই তাকে পছন্দ করেন। এই শক্তিটিই তার মনে আত্মবিশ্বাসের সৃষ্টি করে। আর একজন মেয়েও আত্মবিশ্বাসী ছেলেদের অনেক পছন্দ করে থাকেন।

মেয়েরা অনেক বেশি নিরাপত্তা খুঁজে পায়

হাসিখুশি প্রাণোচ্ছল ব্যক্তিত্বের মানুষেরা জীবনের সকল কিছুর মধ্যে মজার কিছু খুঁজে পান। তারা জীবনটাকে অনেক ইতিবাচক দৃষ্টিতে দেখে থাকেন। এতে করে তার সব কিছুর প্রতি ইতিবাচক মনোভাবের কারণেই মেয়েরা একধরনের নিরাপত্তা খুঁজে পান তাদের মধ্যে।