মেইন ম্যেনু

যে হিসেবে বিশ্বের দুই নম্বর ওয়ানডে দল বাংলাদেশ

স্বপ্নের সময় পার করছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। বিশ্ব ক্রিকেটে নতুন শক্তির নাম এখন বাংলাদেশ। গত বছরের নভেম্বর থেকে টানা সাফল্য পেয়ে যাচ্ছে দলটি।

২০১৪ সালের নভেম্বরে দেশের মাটিতে জিম্বাবুয়েকে পাঁচ ম্যাচের সিরিজে হোয়াইট ওয়াশ করে সেই যে সাফল্যের শুরু। এরপর অস্ট্রেলিয়ার মতো কঠিন কন্ডিশনে বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে খেলা। দেশের মাটিতে পাকিস্তানকে হোয়াইট ওয়াশ। এরপর পরাক্রমশালী ভারতের বিপক্ষে সিরিজ জয়।কঠিন পরীক্ষা ছিল দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজ। প্রথম ওয়ানডেতে হারলেও দ্বিতীয় ম্যাচে পেয়েছে উড়ন্ত জয়।

সব মিলিয়ে বাংলাদেশ এখন বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় ওয়ানডে দল। গত বছরের নভেম্বর থেকে এ বছরের জুলাই পর্যন্ত জয় পরাজয়ের পরিসংখ্যানে বাংলাদেশের অর্জন ঈর্ষনীয়। পাকিস্তান,ভারত, নিউজিল্যান্ডসহ অনেক দলকে পিছনে ফেলে দিয়েছে টাইগাররা। ওয়ানডে ম্যাচের পরিসংখ্যানে জয় পরাজয়ের আনুপাতিক হারে অস্ট্রেলিয়ার পরেই রয়েছে বাংলাদেশ।

আসুন এবার পরিসংখ্যানে চোখ বুলানো যাক। ২০১৪ সালের নভেম্বর থেকে ২০১৫ সালের জুলাই পর্যন্ত বাংলাদেশ খেলেছে মোট ১৯ ওয়ানডে। এরমধ্যে জিতেছে ১৪টিতে। ‍অস্ট্রেলিয়া ১৮ ম্যাচ খেলে জয় পেয়েছে ১৫টি। নিউজিল্যান্ড ২৮ ম্যাচে জিতেছে ১৮টি। দক্ষিণ আফ্রিকা ২০ ম্যাচ খেলে জিতেছে ১১টিতে। নিউজিল্যান্ড সংখ্যায় বেশী ম্যাচ জিতলেও জয় পরাজয়ের আনুপাতিক হারে বাংলাদেশের চেয়ে তারা পিছিয়ে। অন্যদিকে উপমহাদেশের তিন ক্রিকেট শক্তি ভারত, পাকিস্তান এবং শ্রীলঙ্কা জয় পরাজয়ের আনুপাতিক হারে বাংলাদেশের চেয়ে অনেকটাই পিছিয়ে।

সাম্প্রতিক সময়ের এই পারফরম্যান্স বাংলাদেশকে নিয়ে গেছে আইসিসি র‌্যাঙ্কিংয়ের ৭ নম্বর স্থানে। বাংলাদেশের পিছনে রয়েছে পাকিস্তান ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ। বাংরাদেশের সামনে এখন ইংল্যান্ডকে পছিনে ফেলার চ্যালেঞ্জ।