মেইন ম্যেনু

যৌন হয়রানির খবর ডাহা মিথ্যা : ট্রাম্প

যুক্তরাষ্ট্রের আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান দলের প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প বৃহস্পতিবার মার্কিন গণমাধ্যমের তীব্র সমালোচনা করে বলেছেন, নারীদের যৌন হয়রানি ও জোর করে এক নারীকে চুমু দেওয়ার খবর ‘ডাহা মিথ্যা’।

এদিকে মার্কিন ফার্স্ট লেডি মিশেল ওবামা ট্রাম্পকে কঠোর ভাষায় আক্রমণ করেছেন।

আগামী ৮ নভেম্বর যুক্তরাষ্ট্রে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। ওবামার উত্তরসূরি বাছাইয়ের ২৬ দিন আগে ক্ষুব্ধ ফার্স্ট লেডি রিয়েল স্টেট ব্যবসায়ী ট্রাম্পকে তার ‘অশোভন’ আচরণের কড়া সমালোচনা করেন।

বৃহস্পতিবার নিউহ্যাম্পশায়ারে ডেমোক্রেটিক প্রার্থী হিলারি ক্লিনটনের এক সমাবেশে মিশেল ওবামা বলেন, ‘আমাদের এখন সবার একসঙ্গে দাঁড়িয়ে বলার সময় এসেছে, যথেষ্ট হয়েছে। এসব এখনই থামাতে হবে।’

এদিন সন্ধ্যায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামাও ওহাইও রাজ্যে ট্রাম্পের সমালোচনা করেন।

তিনি বলেন, রিপাবলিকানরা গত কয়েক দশক ধরে যে নোংরা পরিস্থিতির সৃষ্টি করেছেন ট্রাম্প তারই ফসল।

তবে ৭০ বছর বয়সী ট্রাম্প তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে অভিযোগকারীদের ‘জঘন্যা মিথ্যুক’ বলে উল্লেখ করেছেন। তিনি এও অভিযোগ করেন যে হিলারি গণমাধ্যমকে ব্যবহার করে তার প্রচারণায় ব্যাঘাত ঘটানোর অপচেষ্টা করছেন।

বুধবার কমপক্ষে ছয় নারী ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অনাকাঙ্ক্ষিত যৌন হয়রানির অভিযোগ তুলেছেন। নিউইয়র্ক টাইমস, এনবিসি, পিপলস ম্যাগাজিনসহ বেশ কয়েকটি গণমাধ্যমে এসব খবর প্রকাশিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার ট্রাম্প ওয়েস্ট পাম বিচে এক সমাবেশে বলেন, ‘আমি নারীদের সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণ করেছি বলে যে কুরুচিপূর্ণ দাবি করা হয়েছে তা একেবারে নিখাদ মিথ্যা।’

তিনি বলেন, ‘এগুলো নির্জলা মিথ্যা। ক্লিনটন পরিবার ও তাদের গণমাধ্যম মিত্ররা এসব অপপ্রচার চালাচ্ছে।’

ট্রাম্প বলেন, তার আইনজীবীরা নিউইয়র্ক টাইমসের বিরুদ্ধে মামলা করার প্রস্তুতি নিচ্ছে। খবর বাসস।