মেইন ম্যেনু

রসরাজের জামিন আবেদন : ফের পেছাল শুনানি

ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের অভিযোগে গ্রেপ্তার হওয়া ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরের রসরাজ দাসের জামিন আবেদনের ওপর শুনানি ফের পিছিয়েছে।

মঙ্গলবার দুপুরে জেলা ও দায়রা জজ ইসমাইল হোসেনের আদালত মামলার পরবর্তী শুনানির জন্য ১৬ জানুয়ারির দিন ধার্য করেন।

এর আগে শুনানিতে রসরাজের আইনজীবী তার জামিন আবেদন করেন। রসরাজের পক্ষে জামিন শুনানিতে অংশ নেন তার আইনজীবী অ্যাডভোকেট মো. নাসির মিয়া। তবে জামিন শুনানির সময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন না অভিযুক্ত রসরাজ দাস।

রসরাজ দাস নাসিরনগর উপজেলার হরিপুর ইউনিয়নের হরিণবেড় গ্রামের জগন্নাথ দাসের ছেলে।

এদিকে জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ( ডিবি) অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মফিজ উদ্দিন ভূইয়া জানান, হরিপুর বাজারের আল আমিন সাইবার পয়েন্টের মালিক জাহাঙ্গীর আলমের হেফাজত থেকে জব্দকৃত কম্পিউটার পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) কাছে পাঠানো হয়েছে। গত রোববার হাতে পাওয়া পিবিআইয়ের রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে, কাবা শরিফ অবমাননার ছবিটা জব্দকৃত জাহাঙ্গীর আলমের কম্পিউটারে সংরক্ষণ ও এডিট করা হয়েছে। কিছুক্ষণ পরে তা আবার মুছে ফেলা হয়েছে।

এদিকে রসরাজের মোবাইল ফোন থেকে ছবি পোস্ট হয়নি বলে আগেই পিবিআইয়ের রিপোর্টে আসে। যা আদালতে জমা দেওয়া হয়েছে। তবে কার মাধ্যমে ছবি ফেসবুকে পোস্ট করা হয় সে বিষয়ে এখন পর্যন্ত নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

অন্যদিকে ঘটনার মূল নায়ক হিসেবে আলোচিত আওয়ামী লীগ দলীয় ইউপি চেয়ারম্যান দেওয়ান আতিকুর রহমান আঁখিকে এখনো গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ।