মেইন ম্যেনু

রাজাপুরে ডাকাতির অভিযোগে যুবককে গণধোলাই

রাজাপুর (ঝালকাঠি) প্রতিনিধি: ঝালকাঠির রাজাপুরে ডাকাতির অভিযোগে সোহেল রানা (২৪) নামে এক যুবককে আটক করে গণধোলাই দিয়ে পুলিশ সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী। গতকাল মঙ্গলবার গভীর রাতে উপজেলার শুক্তাগড় ইউনিয়নের কানুনিয়া গ্রামে জাহাঙ্গীর খানের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

আটক সোহেল রানা রাজাপুর উপজেলার শুক্তাগড় ইউনিয়নের কেওতা গ্রামের বাবুল হাওলাদারের ছেলে। এ ঘটনায় গৃহকর্তা জাহাঙ্গীর খানও জখম হয়েছে। আহত গৃহকর্তা জাহাঙ্গীর ও গণধোলাইয়ের শিকার রানা রাজাপুর স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি। রানা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে পুলিশ পাহারায় রয়েছে।

গৃহকর্তা জাহাঙ্গীর খান জানান, মঙ্গলবার গভীর রাতে তার বসতঘরে সীধঁ কেটে একদল ডাকাত ঘরে প্রবেশ করে ঘরের মালামাল নেয়ার সময় টের পেয়ে তার ঘুম ভেঙ্গে যায়। তখন গৃহকর্তা ডাক-চিৎকার দিলে ডাকাতরা তার পায়ে দাড়ালো অস্ত্র দিয়ে জখম করে দরজা ভেঙ্গে পালানোর সময় স্থানীয়দের সময় সোহেল রানাকে ধরে গণধোলাই দিয়ে পুলিশ খবর দেই। তবে সোহেল রানার সঙ্গীরা পালিয়ে যায়।

আটক সোহেল রানার দাবি, রাতে মাছ কোপাতে গেলে পূর্ব শত্রুতার জেরে তাকে মারধর করে পুলিশে দেয়া হয়েছে। রাজাপুর থানার ওসি শেখ মুনীর উল গীয়াস জানান, ডাকাতির অভিযোগে সোহেল রানাকে আটক করা হয়েছে। তদন্ত করে তার বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা নেয়া হবে।