মেইন ম্যেনু

রাবি শিক্ষক হত্যার প্রতিবাদে ছুটিতেও আন্দোলন অব্যাহত

ইয়াজিম ইসলাম পলাশ, রাবি প্রতিনিধি : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) অধ্যাপক ড. এএফএম রেজাউল করিম সিদ্দিকী হত্যাকা-ের প্রতিবাদে ও বিচারের দাবিতে ১৫তম দিনে বিশ্ববিদ্যালয় ছুটিতেও আন্দোলন অব্যাহত রেখেছে শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। শনিবার সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট ভবনের সামনে রাবি শিক্ষক সমিতি মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে। এরপর সাড়ে ১০টায় মিছিল নিয়ে ক্যাম্পাসের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে মুকুল মঞ্চে সমাবেশ করে ইংরেজি বিভাগ।

মানববন্ধনে শিক্ষক সমিতির সমিতির সভাপতি ড. মো. শহীদুল্লাহ ও সাধারণ সম্পাদক ড. মো. শাহ্ আজম বলেন, একের পর এক শিক্ষক হত্যা করে জাতিকে হত্যা করা হচ্ছে। এটা কোনো সংস্কৃতি হতে পারে না। বাসায় গিয়ে আতঙ্কে থাকতে হয়, কখন আমার স্ত্রী বিধবা হয়, কখন আমার সন্তান বাবা হারা হয়। এভাবে আতঙ্ক নিয়ে বেঁচে থাকা যায়? আমরা আমাদের জীবনের নিরাপত্তা চাই।

এসময় ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক মো. জহুরুল ইসলাম বলেন, রেজাউল করিম সিদ্দিকী হত্যার ১৫ দিন পেরিয়ে গেলেও তদন্তের কোনো অগ্রগতি দেখছি না। মনে হচ্ছে এ হত্যাকা- বিচারের দীর্ঘসূত্রিতার শিকার হবে। আমরা একাডেমিক কার্যক্রম, গবেষণায় ও স্বাভাবিক জীবনযাপনে মনোসংযোগ করতে পারছি না। এখানে শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ ফিরিয়ে আনতে হলে অবিলম্বে এ হত্যাকারীদের শাস্তি নিশ্চিত করতে হবে।

মানববন্ধন থেকে জানানো হয়, আমরা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে স্মারকলিপি প্রদান করেছি। তিনি আমাদের আশ্বস্ত করেছেন আগামী ১২মে রবিবার রাজশাহীতে এসে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ও ছাত্র-শিক্ষকদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন।

গত ২৩ এপ্রিল সকালে নগরীর শালবাগান এলাকায় নিজ বাসার সামনে থেকে ৫০ গজ দূরে রেজাউল করিম সিদ্দিকীকে কুপিয়ে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। ঘটনার দিন বিকেলে নিহত শিক্ষকের ছেলে রিয়াসাত ইমতিয়াজ সৌরভ বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিদের নামে মামলা দায়ের করেন।