মেইন ম্যেনু

রিজার্ভ চুরি: আরো ১৫ মিলিয়ন ডলার ফেরত পাবে বাংলাদেশ

বাংলাদেশ ব্যাংকের রিভার্জ থেকে চুরি যাওয়া অর্থের মধ্যে আরো ১৫ মিলিয়ন ডলার ফেরত পেতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। ফিলিপাইনের স্থানীয় ফিলস্টারের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ফিলিপাইন ক্যাসিনোর কিম অংয়ের ফেরত দেয়া অর্থ বাংলাদেশকে ফিরিয়ে দেওয়ার একটি আবেদনের পক্ষে ইতোমধ্যেই সম্মতি দিয়েছে দেশটির নিম্ন আদালত ।

দেশটির মুদ্রা পাচার প্রতিরোধ কাউন্সিলের (এএমএলসি) নির্বাহী পরিচালক জুলিয়া বাক আবাদ বৃহস্পতিবার আদালতের সম্মতির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বাংলাদেশ থেকে ওই টাকার জন্য ১৫ দিনের মধ্যে আদালতে আবেদন জানানো হলে চুরি হওয়া অর্থ ফেরত দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু করা হবে।

যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল রিজার্ভে সঞ্চিত বাংলাদেশের অর্থ থেকে লোপাট করা ৮১ মিলিয়ন ডলারের মধ্যে প্রায় দুই কোটি ১৫ লাখ ডলার কিম অংয়ের ক্যাসিনোতে ঢুকেছিল। এর আগেও কয়েক ধাপে কিম অংয়ের আত্মসাৎ করা অর্থ বাংলাদেশকে ফেরত দেয়া হয়েছিল। আবারো প্রায় দেড় কোটি ডলার ফেরত পাবে বাংলাদেশ ব্যাংক।

গত এপ্রিল থেকে মে মাসের মধ্যে কয়েক দফায় ১৫ মিলিয়ন ডলার ফিলিপিন্স কর্তৃপক্ষের কাছে হস্তান্তর করেন কিম অং। সেই অর্থ দেশটির কেন্দ্রীয় ব্যাংকে জমা রাখা হয়েছিল। বাংলাদেশের তরফ থেকে ওই টাকা পাওয়ার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হলেই চুরি করা অর্থ ফিরিয়ে দেবে ফিলিপাইন।