মেইন ম্যেনু

রোদ-বৃষ্টিতে পোশাক হবে যেমন

সময়টাই এখন এমন। এই রোদ, এই বৃষ্টি। এই সময়ে প্রায়ই ধুধু রোদের মধ্যে ঝমঝমিয়ে বৃষ্টি পড়তে শুরু করে। ঘরে থাকলে এই রোদ-বৃষ্টির খেলা উপভোগ করতে পারবেন ঠিকই, কিন্তু বাইরে গেলেই বিপদ। কলেজ, অফিস বা অন্যান্য কাজে যাওয়ার পথে যদি বৃষ্টি শুরু হয়, সব সাজগোজ মাটি। পোশাকের হালও হয়ে যায় বাজে। তাই এই সময়ের জন্য প্রস্তুত থাকতে রইল তারই কিছু টিপস –

– বৃষ্টি পড়তে না পড়তেই রাস্তায় পানি জমে যায়। পোশাকে কাদা লেগে যায়। এইসব দিনে বেছে নিন হালকা সুতি, ক্রেপ সিল্ক, পলিয়েস্টার বা লিনেনের পোশাক। বেশি পাতলা পোশাক এড়িয়ে চলাই ভালো, নয়তো ভিজে গেলে খুবই খারাপ দেখাবে।

– বৃষ্টির দিনে লং স্কার্ট না পরাই ভালো। চাইলে শর্ট স্কার্ট বা হাঁটু লেন্থ স্কার্ট পরতে পারেন।

– বর্ষার দিনে শর্ট বা হাঁটু লেন্থের স্কার্ট সবচেয়ে ভালো। আপনি চাইলে পরতে পারেন থ্রি-কোয়াটার বা কেপ্রি। ফুল লেন্থের ট্রাউজার না পরাই ভালো।

– লং ও হালকা রঙের কুর্তির বদলে বেছে নিন শর্ট ও গাঢ় রঙের কুর্তি। সঙ্গে গাঢ় রঙের লেগিন্স। সুন্দর দেখাবে আর পোশাকে দাগ লাগার ভয় থাকবে না।

– বৃষ্টির দিনে শাড়ি পরার বেশ ঝক্কি থাকে। কিন্তু যদি পরতেই হয়, পরে ফেলুন হালকা সুতির প্রিন্টেড শাড়ি। দামী ও ঝমকালো কারুকার্য করা শাড়ি এড়িয়ে চলাই ভালো।

– বৃষ্টির দিনে পোশাক নিয়ে সমস্যা তো থাকেই, সেইসঙ্গে জুতো কী পরবেন, এই নিয়ে চিন্তার শেষ থাকে না। চামড়ার জুতো, কনভার্স, স্নিকার্স, এইসব জুতো না পরে, পরতে পারেন স্লিপার্স বা স্যান্ডেল জাতীয় জুতো। সবচেয়ে ভালো হালকা প্লাস্টিকের জুতো।