মেইন ম্যেনু

লামায় পাহাড় ধসে ৬ জন নিহত

কয়েকদিনের টানা বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলে সৃষ্ট বন্যায় পাহাড় ধসে বান্দরবানের লামা উপজেলায় একই পরিবারের ৬ জন নিহত হয়েছে। এছাড়া ভিন্ন ভিন্ন ঘটনায় আহত হয়েছে ১৬ জন। উপজেলা নির্বাহী অফিসার খালেদ মাহমুদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। নিহতরা হল, মোঃ বশির উদ্দিন(৫৫), আমেনা বেগম (৩০), রোজিনা আক্তার (৩২), মোাঃ সাগর বাদশা প্রকাশ পুতু (১৪), সাজ্জাদ হোসেন(৫), মোঃ আরাফাত হোসেন (১৫), ফাতেমা আক্তার(০৮)। নিহতরা সকলে উপজেলা সদরের হাসপাতাল পাড়ার পাহাড় ধসে নিহত মোঃ বশির উদ্দিনের পরিবারের সদস্য।

শুক্রবার দিবাগত গভীর রাতে পাহাড় ধসে ৫টি বাড়ি মাটি চাপা পড়ে। সাড়ে ৩টায় প্রচুর বৃষ্টিপাতে ফলে পাহাড় ধসে এই ঘটনা ঘটে।

খবর পেয়ে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, ফায়ার সার্ভিস লামা, জেলা ও উপজেলা প্রশাসন, লামা পৌরসভা, লামা থানার পুলিশ, ৩৩ আনসার ব্যাটলিয়ান ও স্থানীয় জনসাধারনের সহযোগিতায় নিহতদের লাশ উদ্ধার করা হয়। নিহতদের দাফন কাপনের জন্য জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে জনপ্রতি ২৫ হাজার, পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক প্রতিমন্ত্রীর পক্ষ থেকে ১০ হাজার, জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে ১০ হাজার টাকা করে প্রদান করা হয়েছে।

বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ক্যশৈহ্লা, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক, বান্দরবান পুলিশ সুপার, লামা উপজেলা নির্বাহী অফিসার খালেদ মাহমুদ, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মোহাম্মদ ইসমাইল, লামা পৌরসভা মেয়র মোঃ আমির হোসেন, জেলা পরিষদ সদস্য কাজী মুজিবর রহমান, জহিরুল ইসলাম, ফাতেমা পারুল ঘটনা স্থল উপস্থিত থেকে উদ্ধার তৎপরতায় অংশগ্রহণ করেছেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা খালেদ মাহমুদ আরো জানান, প্লাবিত এলাকায় আশ্রয় কেন্দ্রে ঝুকিপূর্ণ দুর্গত লোকজন অবস্থান করছে। প্রবল বর্ষণের কারণে উপজেলার লামা পৌরসভা ২নং লামা সদর ইউনিয়ন, ফাইতং, রুপসীপাড়া ও আজিজনগর ফাসিয়াখালীর বহু কাচা ঘরবাড়ি বিধস্ত হয়েছে। লামা পৌরসভার সহ উপজেলার লক্ষাধিক মানুষ পানি বন্দি হয়ে পড়েছে।