মেইন ম্যেনু

শরীয়তপুরে আওয়ামী লীগ প্রার্থী ছাবেদুর রহমান খোকা সিকদার বিজয়ী

শরীয়তপুর প্রতিনিধি ॥ প্রথম বারের মত স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের ভোটের মাধ্যমে জেলা পরিষদ নির্বাচনে শরীয়তপুর মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে ৫৪৬ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান হিসেবে বিজয়ী হয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ছাবেদুর রহমান খোকা সিকদার।

তার নিকটমত প্রতিদ্বন্দ্বী জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি আবদুর রব মুন্সী আনারস প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ৩৭০ ভোট।
জেলার ৫টি সংরক্ষিত মহিলা আসনে ৩নং ওয়ার্ডে কোহিনুর সুলতানা ১৩৭ ভোট, ৪নং ওয়ার্ডে হাবিবুর নাহার নিপা ১০৪ ভোট, ৫নং ওয়ার্ডে আসমা আক্তার ৮৮ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হন।

জেলার ১৫টি সাধারণ সদস্য ১নং ওয়ার্ডে মিন্টু মোল্লা ৩১ ভোট, ৩নং ওয়ার্ডে এমডি. নাসির উদ্দিন ৪৬ ভোট, ৪নং ওয়ার্ডে একেএম মিজানুর রহমান ২৫ভোট, ৫নং ওয়ার্ডে আলমগীর হোসেন মুন্সী ২১ ভোট, ৬নং ওয়ার্ডে এনায়েত উল্লাহ্ ৩৮ ভোট, ৭নং ওয়ার্ডে আলী আহম্মেদ কাজী ৩৭ ভোট, ৯নং ওয়ার্ডে বিএম আনোয়ার হোসেন ৩৭ ভোট, ১০নং ওয়ার্ডে হারুন-অর-রশিদ রাড়ী ৪২ ভোট, ১১নং ওয়ার্ডে আবুল মুনসুর আজাদ (ভিপি শামীম) ৪৪ ভোট, ১২ নং ওয়ার্ডে গোলাম রাব্বানী ২৬ ভোট, ১৩ নং ওয়ার্ডে জাকির হোসেন দুলাল ৩২ ভোট, ১৪নং ওয়ার্ডে কারুজ্জামান আখন্দ ২১ ভোট, ১৫নং ওয়ার্ডে শাখাওয়াত হোসেন হাওলাদার ২১ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হন।

ইতিমধ্যে জেলা পরিষদ সংরক্ষিত মহিলা আসনের পাঁচটি পদের মধ্যে ১ নং ওয়ার্ডে রাশিদা বেগম, ২নং অ্যাডভোকেট রওশনারা বেগম ও সাধারণ সদস্যের পনেরটি ওয়ার্ডের মধ্যে ৮নং ওয়ার্ডে নাসির উদ্দিন পাইক বিনা প্রতিদ্বন্দ্বীতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

এছাড়া ২নং ওয়ার্ডে সুজন ঢালী ২৫ ভোট ও প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী সুলতান সিকদার ২৫ ভোট পেলে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে লটারির মাধ্যমে সুজন ঢালী বিজয়ী হন।

জেলা প্রশাসক মো. মাহমুদুল হোসাইন খান ও জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা সেক জালাল উদ্দিন আহম্মেদ জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টায় জেলা পরিষদ নির্বাচনে বিজয়ীদের নাম ঘোষনা করেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা পুলিশ সুপার সাইফুল্লাহ আল মামুন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. জাহাঙ্গীর হোসেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. মিজানুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অনল কুমার দে, গোসাইরহাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সগীর হোসেন, ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সোহেল আহম্মেদ, নড়িয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সাব্বির আহম্মেদ, শরীয়তপুর জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি নুরুল আমিন কোতোয়াল, শরীয়তপুর জেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক মো. মহসিন মাদবর, যুগ্ম আহবায়ক ইকবাল হোসেন টিপু কোতোয়াল প্রমূখ।