মেইন ম্যেনু

শিক্ষিকাকে একা পেয়ে কোপালো প্রাক্তন স্বামী

দিনাজপুর সদরে রুমি আকতার (২৮) নামে এক শিক্ষিকাকে একা পেয়ে কুপিয়ে আহত করেছেন তার প্রাক্তন স্বামী। আশঙ্কাজনক অবস্থায় আহতকে দিনাজপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বুধবার সন্ধার দিকে সদর উপজেলার রামসাগর খসরুর মোড়ে এ ঘটনা ঘটে।

রুমি আখতার জেলার বিরল উপজেলার রঘুনাথপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা। তিনি দিনাজপুর সদরের বটেরহাট জামালপুর গ্রামের এমদাদের মেয়ে ও সদরের আউলিয়াপুর ইউনিয়নের কাশিমপুর গ্রামের নুর আলমের প্রাক্তন স্ত্রী।

প্রায় আট মাস আগে নুর আলম-রুমি আকতারের বিচ্ছেদ ঘটে। এরপর থেকে শিক্ষিকা রুমি বাবার বাড়িতেই অবস্থান করছিলেন।

দিনাজপুর কোতোয়ালি মডেল থানার এসআই আফতাব জানান, পারিবারিক কলহের জের ধরে আট মাস আগে রুমি আখতারের সঙ্গে নুর আলমের বিয়ে বিচ্ছেদ হয়। কিছুদিন থেকে রুমি আখতারকে বিভিন্ন ভাবে হুমকি দিয়ে আসছিলেন তার প্রাক্তন স্বামী। এ ঘটনায় থানায় মামলা করার প্রস্তুতি নেন শিক্ষিকা রুমি।

এসআই আফতাব বলেন, মামলার বিষয়টি জানতে পেরে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন নুর আলম। এক পর্যায়ে বুধবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে সদরের রামসাগর খসরুর মোড়ে রুমিকে একা পেয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে আহত করে পালিয়ে যায়। এলাকাবাসী গুরুতর আহতাবস্থায় রুমিকে উদ্ধার করে দিনাজপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে।

কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম খালেকুজ্জামান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, তাৎক্ষণিক ভাবে অভিযান চালিয়ে নুর আলমকে আটক করেছি।