মেইন ম্যেনু

শুরু হয়েছে বিপিএলের লটারি

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ (বিপিএল) এর তৃতীয় আসরের জন্য আজ বেলা এগারোটায় রাজধানীর হোটেল রেডিসনে ক্রিকেটারদের লটারি প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। ‘প্লেয়ার্স বাই চয়েজ’ তথা লটারির মাধ্যমে বিপিএলর ফ্র্যাঞ্চাইজিরা তাদের পছন্দের ক্রিকেটারকে দলে ভেড়াতে পারবেন। লটারি পরিচালনা করবেন বিসিবির সহ সভাপতি মাহবুবুল আনাম।

শুরুতে ফ্র্যাঞ্চাইজিদের নামের লটারি হবে। লটারিতে থাকা এক নম্বর স্থান পাওয়া ফ্র্যাঞ্চাইজি নির্দিষ্ট গ্রেডের ক্ষেত্রে সবার আগে পছন্দের ক্রিকেটারকে দলে নিতে পারবে। এভাবে বাকি ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটার টানবে।

প্রথমে দেশীয় ছয় আইকন ক্রিকেটার মাশরাফি বিন মর্তুজা, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, তামিম ইকবাল, নাসির হোসেন ও মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের দল লটারির মাধ্যমে ঠিক হবে। দেশীয় এই আইকন ক্রিকেটারদের সর্বোচ্চ মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ৩৫ লাখ। সর্বোনিম্ন পাঁচ লাখ। বিদেশি সর্বোচ্চ ৭৫ হাজার ডলার সর্বোনিম্ন ৩০ হাজার ডলার।

বিপিএলের লটারিতে দেশি-বিদেশি মিলে প্রায় তিন শতাধিক ক্রিকেটার থাকছেন। দেশি ক্রিকেটারদের এ, বি, সি, ডি চারটি গ্রেডে ভাগ করা হয়েছে। বিদেশি ক্রিকেটারদেরও একই সংখ্যক গ্রেড রয়েছে। প্রতিটি দল সর্বোচ্চ ১৩ জন দেশি খেলোয়াড় নিতে পারলেও খেলাতে পারবে সাত জনকে। অন্যদিকে ১২ জন বিদেশি ক্রিকেটার নিতে পারলেও খেলাতে পারবে চারজনকে। একাদশে চার বিদেশি ক্রিকেটার খেলানো বাধ্যতামূলক করে দেয়ায় দেশীয় ক্রিকেটারদের অর্ধেকই বিক্রিত না হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।