মেইন ম্যেনু

শ্যামল কান্তির নিরাপত্তা নিশ্চিতের আহ্বান

জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান ড. মিজানুর রহমান বলেছেন, ‘শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে তার স্বপদে ফিরিয়ে নিতে হবে। একই সঙ্গে তিনি যেন ভয়ভীতির ছাড়া স্বাভাবিকভাবে স্কুলে যাতায়াত করতে পারেন তার ব্যবস্থাও রাষ্ট্রকে করতে হবে।’

রোববার বিকেলে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন পিয়ার লতিফ সাত্তার উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তিকে দেখতে যান মিজানুর রহমান। সেখানে তিনি সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।

মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান আরো বলেন, ‘এটা দুঃখজনক এবং জঘন্য ঘটনা। যা সভ্য সমাজে হতে পারে না। তিনি একজন শিক্ষক। তার দ্বারা মানুষ তৈরি হয়। অথচ তাকে কান ধরে ওঠ-বস করানো হয়েছে। তাকে যেহেতু পুনর্বহাল করা হয়ছে, এ কারণে তাকে ওই পদে দ্রুত ফিরিয়ে নিতে হবে। আগের মতো তিনি যেন স্কুলে গিয়ে ছাত্রছাত্রী যাতে পড়াতে পারেন, সে ব্যবস্থা করতে হবে। ঘটনার সঙ্গে যেই জড়িত থাকুক তাকে আইনের আওতায় আনতে হবে। ওই শিক্ষককেই নয়, তার পুরো পরিবারের নিরাপত্তাও নিশ্চিত করতে হবে।’

মানবাধিকার কমিশন সবসময় শ্যামল কান্তি ভক্তের পাশে থাকবে বলে আশ্বস্ত করেছেন সংস্থাটির চেয়ারম্যান।

ধর্ম নিয়ে কটূক্তির অভিযোগে গত ১৩ মে পিয়ার লতিফ সাত্তার উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে লাঞ্ছিত করেন স্থানীয় সংসদ সদস্য সেলিম ওসমান, তার সমর্থক ও স্থানীয়রা।