মেইন ম্যেনু

সন্ধ্যায় সিঙ্গাপুরের মুখোমুখি বাংলাদেশ

এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ মহিলা চ্যাম্পিয়নশিপ বাছাইপর্বে নিজেদের প্রথম ম্যাচে গেল আসরের চ্যাম্পিয়ন ইরানকে উড়িয়ে দিয়েছে বাংলাদেশের মেয়েরা, হারিয়েছে ৩-০ গোলে। আজ তাই ফুরফুরে মেজাজ নিয়ে দ্বিতীয় ম্যাচে সিঙ্গাপুরের বিপক্ষে মাঠে নামবে মার্জিয়া-মৌসুমীরা।

সন্ধ্যা ৬টায় বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে শুরু হবে ম্যাচটি। সরাসরি সম্প্রচার করবে বিটিভি ওয়ার্ল্ড।

শক্তিমত্তার বিচারে বাংলাদেশের চেয়ে পিছিয়ে সিঙ্গাপুর। তার ওপর ঘরের মাঠে খেলা। তাই বলে সিঙ্গাপুরকে খাটো করে দেখছেন না বাংলাদেশ দলের কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন, ‘আমরা ম্যাচ বাই ম্যাচ ভালো করতে চাই। অবশ্য এই গ্রুপের সবচেয়ে শক্তিশালী দল ছিল ইরান। তাদেরকে আমরা হারিয়েছে। সেটা নিঃসন্দেহে স্বস্তির। এবার আমাদের প্রতিপক্ষ সিঙ্গাপুর। তারাও যথেষ্ট শক্তিশালী দল। আগের ম্যাচে আরব আমিরাতের বিপক্ষে তারা গোল খেয়ে আবার গোল দিয়ে ম্যাচে ফিরেছে। ২-২ গোলে ড্র করেছে। আসলে প্রতিটা ম্যাচই গুরুত্বপূর্ণ আমাদের জন্য। এখানে হারার কোনো সুযোগ নাই। প্রতি ম্যাচেই পয়েন্ট নিতে হবে। সিঙ্গাপুরের বিপক্ষেও জিততে হবে- এমন মানসিকতা নিয়েই আজ আমরা মাঠে নামব।’

ইরানের মতো শক্তিশালী দলকে ৩-০ গোলে হারিয়ে মোটেও আত্মতৃপ্তিতে ভুগছে না মৌসুমী-মার্জিয়ারা। রোববার অনুশীলনেও তাদের বেশ সিরিয়াস মনে হয়েছে। বিষয়টি উল্লেখ করে কোচ বলেন, ‘মেয়েরা কোনো রকম হাসি-ঠাট্টা কিংবা আত্মতৃপ্তিতে ভুগছে না। বিষয়টা এমন না যে ইরানকে হারিয়ে ফাইনালে চলে গেলাম। এটা টুর্নামেন্ট না। ম্যাচ বাই ম্যাচ জিততে হবে। গ্রুপের সব দলেরই সুযোগ আছে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার।’

এদিকে বাংলাদেশ দলকে সমীহ করার পাশাপাশি এই ম্যাচে ভালো কিছু করতে চায় সিঙ্গাপুর। যেমনটা বলেছেন সিঙ্গাপুরের কোচ চেন কাই ইয়ং, ‘বাংলাদেশ খুবই শক্তিশালী দল। তাদের খেলা দেখেছি। তাদের দলে বেশ কয়েকজন আক্রমণাত্মক ফুটবলার আছে। স্বাগতিকদের বিপক্ষে জিততে পারব এমনটা বলতে পারছি না। তবে কাউকেই আমরা ছেড়ে কথা বলব না। আরব আমিরাতের বিপক্ষে আগের ম্যাচটি ড্র করায় এই ম্যাচে চেষ্টা থাকবে ভালো কিছু করার।’

বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে দিনের অপর ম্যাচে সকাল ১১টায় ইরানের প্রতিপক্ষ কিরগিজস্তান। আর দুপুর ৩টায় চাইনিজ তাইপের বিপক্ষে লড়বে সংযুক্ত আরব আমিরাত।

এই গ্রুপের (‘সি’ গ্রুপ) চ্যাম্পিয়ন দল আগামী বছর এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের চূড়ান্তপর্বে খেলবে।

উল্লেখ্য, এই আয়োজনের কো-স্পন্সর দেশের স্বনামধন্য ইলেকট্রিক্যাল, ইলেকট্রনিকস, অটোমোবাইলস, হোম অ্যাপ্লায়েন্স ও টেলিকমিউনিকেশন পণ্য প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন।