মেইন ম্যেনু

‘সবার ঘরে ঘরে ত্রাণ পৌছে দেয়া হবে : বন্যার পর থাকবে ব্যাপক পুণর্বাসন কর্মসূচি’

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি: আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেছেন, বন্যার্তদের জন্য পর্যাপ্ত ত্রাণ বরাদ্দ করা হচ্ছে। সবার ঘরে ঘরে ত্রাণ দেয়া হবে। আর বন্যার পানি নেমে যাবার পর ব্যাপক পুণর্বাসন কর্মসূচি নেয়া হবে’। তিনি মঙ্গলবার দলের পক্ষ থেকে কুড়িগ্রাম জেলার বন্যার্তদের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করতে এসে এ কথা বলেন।

হানিফ বলেন, প্রত্যেকটি দুর্গত পরিবার যেন যথেষ্ট পরিমাণ সহায়তা পায় সে বিষয়টি কঠোরভাবে মনিটরিং করা হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে আমরা দলের পক্ষ থেকে বন্যা পরিস্থিতি দেখার জন্য এবং ত্রাণ দেয়ার জন্য এসেছি। এই বন্যার পর কী ধরণের পুণর্বাসন সহায়তা দেয়া যায় তা নিয়ে উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশে বিভিন্ন ধর্মের মানুষের শান্তিপূর্ণ সহাবস্থানের ঐতিহ্য আছে। কাজেই ধর্মের নামে দেশে জঙ্গিবাদ বরদাস্ত করা হবেনা। জঙ্গিবাদ উৎখাত করার জন্য সরকার সব ধরণের ব্যবস্থা নিয়েছে। দেশের এক ইঞ্চি জমিও কোন সন্ত্রাসীর জন্য ব্যবহার করতে দেয়া হবেনা। যেখানেই তথ্য পাওয়া যাবে, সেখানেই অভিযান চালিয়ে জঙ্গিদের চিরদিনের মতো উৎখাত করা হবে’।

মাহবুবুল আলম হানিফ নাগেশ্বরীর বেরুবাড়ী, বল্লভের খাস, নুন খাওয়া, চিলমারীসহ কয়েকটি এলাকায় দলের পক্ষ থেকে বন্যার্তদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন। আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, জেলা পরিষদের প্রশাসক মো: জাফর আলী, আওয়ামীলীগের সভাপতি আমিনুল ইসলাম মঞ্জু মন্ডল, কেন্দ্রীয় নেতা অ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন, ফরিদুন্নাহার লাইলী, কুড়িগ্রামের পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট আব্রাহাম লিংকন, অধ্যক্ষ রাশেদুজ্জামান বাবু, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি খন্দকার ওয়াহেদুন্নবী সাগর, সাধারণ সম্পাদক সফিকুল ইসলাম সাকিব ত্রাণ বিতরণকালে উপস্থিত ছিলেন।