মেইন ম্যেনু

সম্ভাব্য প্রার্থীদের হয়রানি করছে ক্ষমতাসীনরা

ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ক্ষমতাসীনদের হয়রানিতে বিএনপির সম্ভাব্য প্রার্থীরা ঘর ছাড়া হয়েছে বলে দাবি করেছেন দলটির যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

বৃহস্পতিবার নির্বাচন কমিশনে বিএনপির চেয়ারম্যান প্রার্থীদের প্রত্যয়নের জন্য ক্ষমতাপ্রাপ্ত ব্যক্তির নাম ও নমুনা স্বাক্ষর জমা দিয়েছে।

তিনি বলেন, ইসি সচিবের কাছে প্রার্থী প্রত্যয়নে বিএনপির ক্ষমতাপ্রাপ্ত ব্যক্তি হিসেবে ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের নাম ও নমুনা স্বাক্ষর জমা দিয়েছেন রুহল কবির রিজভী নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধিদল।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে রিজভী বলেন, আমাদের প্রার্থীদের শুধু ভয়ভীতি নয়, মিথ্যা মামলা দিয়ে স্পেচিফিকভাবে (সুনির্দিষ্টভাবে) গ্রামের নাম ধরে তালিকা করে বাড়ি বাড়ি গিয়ে হয়রানি করছে। আমাদের সম্ভাব্য প্রার্থীরা এখন বাড়ি-ঘর ছাড়া; যাতে ধানের শীষের প্রার্থীরা ভালো করে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে না পারে সে জন্য এসব করা হচ্ছে।

আওয়ামী লীগকে উদ্দেশ করে এ বিএনপি নেতা বলেন, গণতন্ত্রের মুখোশ পরে তারা এক দলীয় শাসন প্রতিষ্ঠার সব কাজ করে যাচ্ছে। গণতন্ত্র সংকুচিত হয়ে আসছে। এরপরও যতটুকু ছোট্ট পরিসর রয়েছে তাতে গণতন্ত্র চর্চার অংশ হিসেবে আমরা ইউপি ভোটে অংশ নিচ্ছি। আওয়ামী লীগ গত নির্বাচনগুলোয় যা করেছে এবারও কি হবে তা অনুমান করা যায়।

বিদ্যমান পরিস্থিতিতে বর্তমান নির্বাচন কমিশনের প্রতি অনাস্থার ইঙ্গিত দিয়ে তিনি বলেন, সুষ্ঠু নির্বাচনে ইসি তো আগেই আস্থা ক্ষুণ্ণ করেছে। ইসির স্বাধীন, স্বতন্ত্র সত্তা দেখতে পাইনি; সরকারের অনুগত হয়ে তারা কাজ করছে। ইসির তাদের অধিকার প্রয়োগ করেনি; বরং সরকারের মুখপাত্র হয়ে কাজ করেছে অতীতে।

ইউপি নির্বাচনকে সামনে রেখে ১৮ ফেব্রুয়ারির মধ্যে ক্ষমতাপ্রাপ্ত ব্যক্তির নাম ইসিতে জমা দেয়ার কথা রয়েছে।