মেইন ম্যেনু

সরকারকে বেকায়দায় ফেলতেই গুপ্ত হত্যা

বাংলাদেশে আইএসের কোনো সংগঠন নেই, তাদের কোনো অস্তিত্বও নেই। শুধুমাত্র আওয়ামী লীগ সরকারকে অস্থিতিশীল করার জন্য বিভিন্ন স্থানে গুপ্ত হত্যা চালানো হচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ।

শুক্রবার সকালে কুষ্টিয়া পিটিআই রোডস্থ নিজ বাসভবনে দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে এক মতবিনিময় শেষে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে এ মন্তব্য করেন তিনি।

মাহবুব-উল-আলম হানিফ বলেন, ‘বিএনপি জামায়াতের বিভিন্ন সন্ত্রাসী সংগঠন বিভিন্ন নাম দিয়ে হত্যাকাণ্ডগুলো ঘটাচ্ছে। ইদানিং দেখা গেছে তারা তাদের একটা সেফ প্রটেকশনের জন্য আন্তজাতিকভাবে যে জঙ্গি সংগঠন রয়েছে সেই ধরনের নাম ব্যবহার করছে। আর এটা তারা দুইটা উদ্দেশ্যে করছে। একটা হচ্ছে সন্ত্রাসীদের দ্বারা কিছুটা নিরাপদ বোধ করা, দ্বিতীয়টা হচ্ছে বাংলাদেশকে জঙ্গি রাষ্ট্র হিসেবে প্রতিষ্ঠা করা।’

কুষ্টিয়ায় যুবলীগের এক নেতাকে কুপিয়ে হত্যার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘গতকাল যে হত্যার ঘটনা ঘটেছে তা সামাজিক দ্বন্দ্বের কারণে হয়েছে। আজ আওয়ামী লীগ বিএনপির মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় আওয়ামী লীগ কর্মী হোটেল মালিক মারা গেছে। হত্যাকারীদের গ্রপ্তার করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।’ পরে তিনি জেলা আইনজীবী সমিতির এক অনুষ্ঠানে যোগ দেন।

এ সময় জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আজগর আলী, সহ-সভাপতি হাজী রবিউল ইসলামসহ দলীয় নেতা কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।