মেইন ম্যেনু

সরকার হাতেম তাইয়ে পরিণত হয়েছে : এমাজউদ্দীন

বর্তমান সরকার ভারতকে সকল প্রকার সুবিধা দিতে দানবীর হাতেম তাইয়ে পরিণত হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন উপাচার্য প্রফেসর এমাজউদ্দীন আহমদ।

বুধবার জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলন আয়োজিত ‘ভারতীয় প্রধানমন্ত্রীর সফর : প্রত্যাশা ও প্রাপ্তি’ শীর্ষক গোলটেবিল আলোচনা সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

এমাজ উদ্দিন বলেন, ‘ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সফরে আমাদের দেশের সঙ্গে ২২টি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। এর বেশিরভাগই ভারতের স্বার্থে। এতে আমাদের কোনো স্বার্থ নেই। এসব চুক্তির মাধ্যমে বাংলাদেশেকে ভারতের জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘একজনকে সন্তুষ্ট করার উদ্দেশে আমার উঠান খুলে দিলাম। কিন্তু খোলা উঠানে পা দেয়ার ক্ষমতা আমার থাকবে কি না, তা সরকারকে ভেবে দেখা উচিত। আর মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে যে দেশ স্বাধীন করেছি, কোনো চুক্তির মাধ্যমে সে দেশের এক ইঞ্চি মাটিও ছেড়ে দেওয়া হবে না।’

তিনি আরো বলেন, ‘মোদির সফরের মাধ্যমে দুই দেশের সীমান্ত ও তিস্তা চুক্তিসহ বিরাজমান সকল সমস্যা সমাধান হওয়ার আশা থাকলেও এ সম্পর্কে কোনো আলোচনা হয়নি। কারণ, সীমান্ত ও তিস্তা চুক্তি সম্পর্কে যারা কথা বলবেন তাদের দক্ষতার ওপর নির্ভর করছে কীভাবে তিস্তা ও সীমান্ত চুক্তি বাস্তবায়িত হবে। সরকার কখনোই চায়নি মোদির সঙ্গে খালেদার বৈঠক হোক। এর একমাত্র কারণ বর্তমান সরকার জনসমর্থনহীন।’

আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন আয়োজক সংগঠনের সভাপতি রফিকুল ইসলাম রিপন, স্বাধীনতা ফোরামের সভাপতি আবু নাসের মো. রহমতউল্লাহ, কৃষক দলের নেতা শাহজাহান মিয়া সম্রাট।