মেইন ম্যেনু

সাংবাদিকদের নিয়ে মিথ্যা অভিযোগ করায় ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কাশেমকে নিন্দা

মাগুরা প্রতিনিধিঃ রমজান উপলক্ষে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় সাংবাদিকদের সম্পর্কে বিরূপ মন্তব্য করায় ও কিছুক্ষণ পরই তা অস্বীকার করায় সদর উপজেলার কছুন্দি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আবুল কাশেমকে প্রকাশ্য সভায় নিন্দা জানিয়েছেন জেলায় কর্মরত সাংবাদিকবৃন্দ। মঙ্গলবার দুপুরে পুলিশ সুপারের সম্মেলন কক্ষে এ ঘটনা ঘটে। জানা গেছে- ওই সভায় নিজের বক্তব্যের এক পর্যায়ে চেয়ারম্যান আবুল কাশেম সাংবাদিকদের তার সম্পর্কে বানোয়াট সংবাদ পরিবেশনের অভিযোগ আনেন। এ সময় তিনি বলেন- তার সম্পর্কে যা ঘটেনি তা নিয়ে সংবাদ পরেবেশন করা হচ্ছে। একজনের দোষ অন্যের কাঁধে চাপিয়ে দেয়া হচ্ছে। তিনি এ ধরনের কাজ করা থেকে সাংবাদিকদের বিরত থাকার আহবান জানান।

এ বক্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়ে জেলা প্রেসক্লাবের সদস্য সচিব শরীফ আমিরুল হাসান বুলু সাংবাদিকদের পক্ষে চেয়ারম্যানের কাছে ব্যাখ্যা দাবী করেন। তিনি এ ধরনের ঢালাও অভিযোগের প্রতিবাদ ও বক্তব্য প্রত্যাহারের দাবী করেন। এ সময় অন্যান্য সাংবাদিকরাও তার সঙ্গে কন্ঠ মেলান। কিছুক্ষন পরই চেয়ারম্যান আবুল কাশেম এ ধরনের কোন বক্তব্য দেননি বলে প্রকাশ্য সভায় মিথ্যাচার করেন। সঙ্গে সঙ্গে সাংবাদিকরা তার কথার কড়া প্রতিবাদ করেন। এ সময় সাংবাদিকরা তাকে মিথ্যাবাদি হিসেবে প্রকাশ্য সভায় ভৎসনা করেন। মাগুরাবার্তার সম্পাদক ও এসএটিভির জেলা প্রতিনিধি রূপক আইচ তার কাছে এ বক্তব্যের ভিডিও রেকর্ড আছে বলে জানালে তিনি (আবুল কাসেম) চুপসে যান। এ সময় মাগুরার সাংবাদিকদের কাছের মানুষ হিসেবে পরিচিত সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মুক্তিয্দ্ধোা রুস্তম আলীর মধ্যস্ততায় ঘটনার মিমাংসা হয়। পরে চেয়ারম্যান আবুল কাশেম ক্ষমা চেয়ে তার বক্তব্য প্রত্যাহার করেন। এ সময় সেখানে আরো উপস্থিত ছিলেন-দৈনিক খেদমতের সম্পাদক খান শরাফত হোসেন, ডেইলি অবজারভারের সাংবাদিক হোসেন সিরাজ, মাছরাঙ্গা টিভির আবু বাসার আখন্দ, ডেলি সান এর খান রকিবুল হক দিপু, বাংলাদেশ প্রতিদিনের রাশেদ খানসহ অন্যরা।