মেইন ম্যেনু

সাতক্ষীরার শ্যামনগরে পুলিশের সাথে বন্দুক যুদ্ধে বাহিনী প্রধান আলালসহ নিহত-০২

সাতক্ষীরার শ্যামনগরে পুলিশের সাথে বন্দুকযুদ্ধে বনদস্যু আলাল বাহিনীর প্রধান আলালসহ দুই জন নিহত হয়েছে। সোমবার রাত ১০ টার দিকে উপজেলার বড় কুপোট গ্রামের পাশে নওয়াবেকী জামান ব্রিকসের মধ্যে এ ঘটনাটি ঘটে। নিহত বনদস্যুরা হলো, আশাশুনি উপজেলার শিতলপুর গ্রামের আলিমুদ্দীন গাজীর ছেলে বনদস্যু আলাল বাহিনীর প্রধান আলাল গাজী ওরফে আলাউদ্দীন (৪৫) ও শ্যামনগরের ৯ নং সোরা গ্রামের রশিদ সরদারের ছেলে সাইদুল ইসলাম (৩০)। নিহতদের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

শ্যামনগর থানার ওসি ইনামুল হক এ ঘটনার নিশ্চিত করে জানান, গোপন সংবাদের ভিক্তিতে শ্যামনগর থানার এসআই আব্দুল কাদের ও এসআই নাজমুল হাসান জানতে পারেন, বনদস্যুরা রাতে নওয়াবেকী জামান ব্রিকসের পাশ দিয়ে সুন্দরবনে প্রবেশ করবে। এসময় তারা সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে সেখানে ওঁৎ পেতে বসে থাকেন। বনদস্যুরা এ সময় পুলিশকে দেখে ইট ভাটার মধ্যে চলে যায়। পুলিশও তাদের পিছু নেয়।

এসময় পুলিশকে লক্ষ্য করে তারা ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে। পুলিশও আত্মরক্ষার্থে গুলি ছোঁড়ে। এতে বনদস্যু আলাল বাহিনীর প্রধান আলালসহ দুই বনদস্যু গুরুত্বর আহত হয়। আহত দুই বনদস্যুকে শ্যামনগর স্বাস্থ্য কমল্পেক্সে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাদেরকে মৃত ঘোষনা করেন। পুলিশ ঘটনা স্থলে তল্লাশি চালিয়ে ৫ রাউন্ড তাজা বন্ধুকের গুলি ও ৩ টি দাঁ উদ্ধার করে।