মেইন ম্যেনু

সিনহা না ফেরা পর্যন্ত দায়িত্বে ওয়াহ্হাব, প্রজ্ঞাপন জারি

আগামী ২ নভেম্বর থেকে ১০ নভেম্বর পর্যন্ত প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার বিদেশে অবস্থানকালীন সময়ে অথবা তার কার্যভার গ্রহণ না করা পর্যন্ত প্রধান বিচারপতির দায়িত্ব দেয়া হয়েছে আপিল বিভাগের জ্যেষ্ঠ বিচারক বিচারপতি মোহাম্মদ আব্দুল ওয়াহহাব মিঞাকে।

বৃহস্পতিবার রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করেছে আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

এর আগের জারি করা প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছিল ৩ অক্টোবর থেকে ১ নভেম্বর পর্যন্ত প্রধান বিচারপতির দায়িত্ব পালন করবেন ওয়াহ্হাব মিঞা।

আগের প্রজ্ঞাপনের ধারাবাহিকতায় আজকের প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে।

এক মাসের ছুটিতে থাকা প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার (এসকে) সিনহা ১৩ অক্টোবর থেকে ১০ নভেম্বর পর্যন্ত বিদেশে অবস্থান করতে চান। বিষয়টি উল্লেখ করে আইন মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে ১০ অক্টোবর রাষ্ট্রপতির কাছে একটি চিঠি পাঠান তিনি।

প্রধান বিচারপতির চিঠিতে বলা হয়েছে, তিনি শারীরিকভাবে অসুস্থ, মানসিকভাবেও অবসাদগ্রস্ত। এ কারণে বিশ্রামের জন্য ১৩ অক্টোবর বা তার কাছাকাছি সময়ে বিদেশ যেতে চান তিনি।

বুধবার সচিবালয়ে সরকারি ক্রয় কমিটির বৈঠক শেষে বেরিয়ে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক সাংবাদিকদের জানান, প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার (এসকে) সিনহার বিদেশ যাওয়ার আবেদনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা স্বাক্ষর করেছেন।

সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনীর পূর্ণাঙ্গ রায় নিয়ে ক্ষমতাসীন দলের নেতাদের সঙ্গে সম্পর্কের টানাপোড়েনের মধ্যে বিভিন্ন শারীরিক জটিলতার কথা বলে গত ৩ অক্টোবর থেকে ১ নভেম্বর পর্যন্ত এক মাসের ছুটি নেন প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহা।

সংসদের বাইরে থাকা বিএনপি দাবি করছে, প্রধান বিচারপতিকে জোরপূর্বক ছুটিতে পাঠানো হয়েছে।

এস কে সিনহা ছুটি নেয়ায় ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতির দায়িত্ব পেয়েছেন আপিল বিভাগের জ্যেষ্ঠ বিচারপতি আব্দুল ওয়াহহাব মিঞা।

ইতোমধ্যে বিচারপতি সিনহা ও তার স্ত্রী সুষমা সিনহা তিন বছরের জন্য অস্ট্রেলিয়ার ভিসা পেয়েছেন বলে বিভিন্ন গণমাধ্যম সংবাদ প্রকাশ করেছে। তারা শিগগিরই অস্ট্রেলিয়া যাবেন। সেখানে তাদের বড় মেয়ে সূচনা সিনহা বসবাস করেন।






মন্তব্য চালু নেই