মেইন ম্যেনু

সেলফি আপলোড করে গ্রেফতার হলেন খুনি!

খুন করে পালিয়ে বেড়াচ্ছিলেন খুনি। পুলিশও তার সন্ধানে নেমেছিল। কিন্তু কিছুতেই তার সন্ধান পাচ্ছিল না পুলিশ। পরে নিজের সেলফি তুলে তা সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইটে আপলোড করতেই বিপদ নেমে আসে ঐ খুনির। পুলিশ ঐ সেলফির লোকেশন দেখেই আটক করে ঐ খুনিকে। ঘটনাটি ভারতের বেঙ্গালুরুর।

জানা যায়, গত বুধবার মণিকা ঘুর্দে নামের এক খ্যাতনামা সুগন্ধি ব্যবসায়ীর দেহ উদ্ধার করা হয় গোয়ায় তার নিজের ফ্ল্যাট থেকে। সম্পূর্ণ উলঙ্গ অবস্থায় উদ্ধার করা হয় তার দেহ। রাতে তার এক বান্ধবী

ফ্ল্যাটে ফিরে এই দৃশ্য দেখেই পুলিশে খবর দেন। পুলিশের অনুমান, ধর্ষণ করে খুন করা হয়েছে মণিকা দেবীকে।

এই ঘটনায় ওই এলাকায় বেশ চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। প্রাথমিক তদন্তের পরই পুলিশ জানতে পারে ঘটনার পর থেকেই উধাও মনিকার আবাসনের নিরাপত্তারক্ষী। প্রতিবেশীদের জিজ্ঞাসাবাদ করে ওই নিরাপত্তারক্ষীর তথ্য জোগার করে তদন্তকারী দল। ইতিমধ্যেই পুলিশ জানতে পারে, মণিকা দেবীর এটিএম কার্ড ব্যবহার করে টাকা তোলা হয়েছে। সেই সূত্র ধরেই পুলিশ তদন্ত শুরু করে।

পুলিশ সূত্রের খবর, রাজকুমার নামের ওই ২২ বছরের পাঞ্জাবি যুবক সম্প্রতি ওই আবাসনে কাজে নিরাপত্তারক্ষী হিসাবে যোগ দিয়েছিল। পুলিশের সন্দেহের তালিকায় তার নাম ছিল। ফলে তার সমস্ত খোঁজ রাখছিল পুলিশ। ঘটনার পর থেকেই তার কোন খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না। এমনকি, সোশ্যাল নেটওয়ার্কেও কোন আপডেট ছিল না। কিন্ত রোববার একটি দোকানের সামনে সেলফি তুলে সাইটে আপলোড করে সে। সেখান থেকেই পুলিশ জানতে পারে আপাতত বেঙ্গালুরুতে গা ঢাকা দিয়েছে ওই যুবক। পরে প্রায় ৪০টি লজে ঘুরে পুলিশ তাকে আটক করে।