মেইন ম্যেনু

সোনা জিতে সবাইকে তাক লাগাল কাশ্মীরের এই খুদে বক্সার

রাতে কান পাতলে শোনা যায় বোমার শব্দ৷ দৈনন্দিন জীবনে আচমকা থাবা বসায় সন্ত্রাস৷ এভাবেই বেড়ে উঠতে অভ্যস্ত কাশ্মীরের শিশুরা৷ সেই প্রতিকূলতাকে জয় করে সন্তানের উজ্জ্বল ভবিষ্যৎ গড়ে তুলতে আপ্রাণ চেষ্টা করে যান অভিভাবকরা৷ আর তখনই জন্ম নেয় আব্বু আম্মাজের মতো রত্নরা৷

খেলার দুনিয়ায় ফের উজ্জ্বল হল কাশ্মীরের নাম৷ জাতীয় বক্সিং চ্যাম্পিয়নশিপে সোনা জিতে দেশকে তাক লাগিয়ে দিয়েছে খুদে এই বক্সার৷ দিনরাত অক্লান্ত পরিশ্রমের ফল পেয়েছে সে৷ দ্বিতীয় শ্রেণির আব্বুর এমন সাফল্যে গোটা কাশ্মীর তাকে কুর্নিশ জানিয়েছে৷ রাজৌরির আট বছরের খুদে বক্সারকে জেলা প্রশাসন এবং পুলিশের তরফেও বিশেষ সংবর্ধনা দেওয়া হয়েছে৷ জাতীয় স্তরে সোনা এনেছে সন্তান৷ গর্বিত বাবা আব্বাস সাদাকি বলছেন, “এখন সবে পথচলা শুরু৷ আমি ওকে অলিম্পিকের বক্সিং রিংয়ে দেখতে চাই৷ উপরওয়ালার কাছে প্রার্থনা করি, গোটা বিশ্বে ও যেন এভাবেই বারবার দেশের মুখ উজ্জ্বল করতে পারে৷”

আব্বুরাই অশান্ত কাশ্মীরকে শান্তির বার্তা দেবে৷ সন্ত্রাসের ঝড়কে রুখে দেবে৷ আশা, কাশ্মীরের স্থানীয়দের৷