মেইন ম্যেনু

সৌদি জোটের প্রতিরক্ষা উপদেষ্টা হচ্ছেন রাহিল শরিফ

পাকিস্তানের সেনাবাহিনীর প্রধানের পদ থেকে কিছু দিন আগেই অবসর নিয়েছেন রাহিল শরিফ। তবে এবার নতুন ভূমিকায় দেখা যাবে এই অবসরপ্রাপ্ত সেনা প্রধানকে। সৌদি আরবের নেতৃত্বাধীন ৩৯ দেশের সামরিক জোটের প্রতিরক্ষা উপদেষ্টা হিসেবে যোগ দেবেন তিনি।

খুব শিগগিরই উপদেষ্টা হিসেবে তার যোগ দেওয়ার কথা রয়েছে। সৌদি রাজ পরিবারের আমন্ত্রণে বর্তমানে রিয়াদে অবস্থান করছেন তিনি। সেখানে যৌথ সামরিক বাহিনীর সদর দপ্তরে নিজের দায়িত্ব নিয়ে কথা বলবেন তিনি।

২০১৫ সালে ইয়েমেনের তৎকালীন প্রেসিডেন্ট আব্দ রাব্বু মনসুর হাদির সরকারকে উৎখাত করে শিয়া ধর্মাবলম্বী হুতি বিদ্রোহীরা। প্রায় দু’মাস গৃহবন্দী থাকার পর ২৫ মার্চ ইয়েমেন ছেড়ে পালিয়ে যান তিনি। পরদিন রিয়াদে হাজির হন তিনি। তার সরকারকে পুনর্বহাল করতে ইয়েমেনে বোমা বর্ষণ শুরু করে সৌদি এবং আরব বিশ্বের সুন্নি মুসলিম অধ্যুষিত ৮ রাষ্ট্র। তাদের সমর্থন জোগায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, ব্রিটেন এবং ফ্রান্স।

গত দেড় বছরে সেখানে মৃতের সংখ্যা ৭ হাজার ছাড়িয়েছে। আহত হয়েছে আরো প্রায় ৩৫ হাজার মানুষ। তা সত্ত্বেও যুদ্ধ বন্ধ হওয়ার মত কোনো সমাধান এখনো মেলেনি। সৌদি সরকারের দাবি, আইএস এবং অন্যান্য জঙ্গি সংগঠনগুলোকে হঠাতেই এই সামরিক জোট গঠিত হয়েছে। তুরস্ক, সংযুক্ত আরব আমিরাত, বাহরাইন, তিউনিশিয়া, দক্ষিণ সুদান, মালয়েশিয়া, মিসর, ইয়েমেনসহ বর্তমানে এই সামরিক জোটে ৩৯টি দেশ রয়েছে।