মেইন ম্যেনু

স্কুলছাত্রীর শ্লীলতাহানির ভিডিও করা সেই যুবক কারাগারে

ঝালকাঠি জেলার নলছিটি উপজেলায় এক স্কুলছাত্রীর শ্লীলতাহানির ভিডিও প্রচার করা হয় সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকে। আর সেই ফেসবুকের সূত্র ধরে কয়েকটি গণমাধ্যমে সংবাদ প্রচার হয়। কিন্তু এ ঘটনার সংবাদ প্রকাশ করায় অভিযুক্ত ব্যক্তি ৪ সংবাদিকদের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করতে গিয়ে নিজেই কারাগারে গেছেন। আদালতের বিচার বাদী হয়ে ভিডিওতে দেখা অভিযুক্ত যুবকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে কারাগারে পাঠায়।

মামলা সূত্রে জানাগেছে, এ বছরের জানুয়ারি মাসে ঝালকাঠির নলছিটি উজেলার এক এলাকায় বোরখা পরিহিত এক স্কুলছাত্রীকে পথরোধ করে ভয়ভীতি দেখিয়ে তার বোরখা খুলে শ্লীলতাহানি করে কয়েকজন যুবক। আর সম্প্রতি এ ঘটনার ভিডিও ফুটেজ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়। ভিডিওটিতে দেখতে পাওয়া শ্লীলতাহানিকারী যুবক নলছিটি উপজেলার নান্দিকাঠী গ্রামের আব্দুল জলিল চৌধুরীর ছেলে মো. রেজাউল চৌধুরীর নাম উল্লেখ করে দৈনিক বাংলাদেশ প্রতিদিন ও সমকালসহ কয়েকটি পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ হয়। কিন্তু এ ঘটনায় অভিযুক্ত যুবক মঙ্গলবার দুপুরের ঝালকাঠি সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ৪ সাংবাদিদের বিরুদ্ধে মামলা করতে যান।

তবে আদালত বিষয়টি ফেসবুকের মাধ্যমে আগেই অবগত থাকায় স্বপ্রণোদিত হয়ে ওই যুবকের বিরুদ্ধে ১৯০ (১) (সি) ধারার দণ্ডবিধির ২৯৫এ/৩৫৪/৫০৬/৫০৯ ধারায় অপরাধ আমলে নিয়ে বিচার এইচ এম কবির হোসেন বাদী হয়ে মামলা (নং ৪১১৭/১৭) দায়ের করে ঘটনায় জড়িত রেজাউলকে কারাগারে পাঠায়।