মেইন ম্যেনু

স্তন ক্যানসারের ঝুঁকিতে আছেন? এই খাবার গুলো পারে আপনাকে বাঁচাতে!

নতুন এক গবেষণায় দেখা গেছে, দই ও দুধের মতো উন্নত জৈব রাসায়নিক উপাদানে সমৃদ্ধ খাবার নারীদের স্তন ক্যানসার থেকে রক্ষা করতে পারে।

স্তন ক্যানসারে আক্রান্ত রোগীর স্তনে ক্যানসার সৃষ্টিতে সহায়ক ব্যাকটেরিয়ার উপস্থিতি যেমন থাকে তেমনি স্বাস্থ্যকর স্তনে থাকে প্রচুর পরিমাণ উপকারী ব্যাকটেরিয়া। উপকারী ব্যাকটেরিয়াগুলো নারীদের স্তান ক্যানসার থেকে রক্ষা করে। এই গবেষণার ফলে এখন দই বা দুধের মতো জৈব রাসায়নিক উপাদানে সমৃদ্ধ খাবার স্তন ক্যানসারের চিকিৎসায় ব্যবহার শুরু হবে।

কানাডার লসন হেলথ রিসার্চ ইনিস্টিটিউটের বিজ্ঞানীরা স্তন ক্যানসারে আক্রান্ত ৫৮ জন নারী এবং ২৩ জন সুস্থ স্তনধারী নারীর স্তন থেকে টিস্যু সংগ্রহ করে একটি গবেষণা চালান।

গবেষণায় দেখা গেছে, স্তন ক্যানসারে আক্রান্ত নারীদের স্তন এমন কিছু ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়া আছে যেগুলো স্তনের জীব কোষের ডিএনএতে দুই ধারী ফাটল সৃষ্টিতে সক্ষম। আর এই ধরনের ফাটল খুব সহজেই সারে না। যার ফলে ক্যানসারের সৃষ্টি হয়।
বাচ্চাদের বুকের দুধ খাওয়ালে ক্যানসারের ঝুঁকি কমে এই জ্ঞান ওই গবেষণায় উৎসাহের যোগান দেয় বলেও জানান গবেষকরা।

এই গবেষণার পর প্রশ্ন উঠেছে, স্তন ক্যানসারের ঝুঁকিতে আছেন এমন নারীদের দেহে কৃত্রিমভাবে জৈব রাসায়নিক উপাদানে সমৃদ্ধ ব্যাকটেরিয়ার প্রবেশ ঘটিয়ে তাদের স্তনে উপকারী ব্যাকটেরিয়ার উপস্থিতি বাড়ানোর চিকিৎসা দেওয়া যেতে পারে কিনা?

গবেষকেরা বলেন, সরাসরি স্তন ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করার পাশাপাশি জৈব রাসায়নিক উপাদানে সমৃদ্ধ চিকিৎসা উপাদান ব্যবহার করে ক্যানসারের ঝুঁকিতে থাকা স্তনে ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়ার পরিমাণ কমিয়ে উপকারী ব্যাকটেরিয়ার উপস্থিতি বাড়ানো যেতে পারে। অ্যাপ্লাইড অ্যান্ড এনভায়রনমেন্টাল মাইক্রোবায়োলজিতে এই গবেষণার ফলাফল প্রকাশিত হয়।