মেইন ম্যেনু

স্পর্শিয়ার পিঠখোলা ছবি নিয়ে তোলপাড়

জনপ্রিয় মডেল ও অভিনেত্রী অর্চিতা স্পর্শিয়ার একটি পিঠ খোলা ছবি নিয়ে ফেসবুকে তোলপাড়। ঝড় উঠেছে নিন্দার। আপাতদৃষ্টিতে ছবিটিকে পুরো নগ্ন বলেই দাবি করছেন ফেসবুক কমেন্টওয়ালারা।

জানা যায়, টিজেড’স স্টোর নামে একটি গয়না বিক্রয় প্রতিষ্ঠানের মডেল হতে গিয়ে এমন একটি ছবি তোলেন স্পর্শিয়া। ছবিটি বৃহষ্পতিবার আপলোড করা হয় তার ফ্যান পেইজে। এরপর থেকেই শুরু হয়েছে মন্তব্যের ঝড়। যার বেশিরভাগই বেশ আপত্তিকর এবং হিংসাত্মক। অনেক মন্তব্যকারী স্পর্শিয়াকে প্রশ্ন করে বলেছেন, এই রোজার মাসে যেখানে নায়লা নাঈম হিজাব পরেছে সেখানে স্পর্শিয়া কেমন করে এমন একটি আপত্তিকর ছবি তুললেন? কেউ কেউ বলেছেন, এটা জনপ্রিয়তা অর্জনের একটি সহজ উপায়। অনেকে বলেছেন, রোজার মাসে এই ছবি ফেসবুকে আপলোড করা ঠিক হয়নি।

আবার অনেকে এই ছবিকে সমর্থন আর অজস্র বিরুপ মন্তব্যের প্রতিবাদ করে লিখেছেন, বাঙালির রুচিবোধ কেমন তা কমেন্টগুলো দেখলে টের পাওয়া যায় । ভাগ্যিস এদেশে পিকাসো জন্মায়নি, তাহলে তার আঁকা ছবিকে অশ্লীল বলে এদেশের মূর্খ জনগণ ছিঁড়ে ফেলতো। আবার কেউ কেউ সন্দেহ প্রকাশ করে বলেছেন, ‘এই ছবি স্পর্শিয়ার নয়। সে এমন ছবি তুলতেই পারে না। এটা নকল ছবি।’

স্পর্শিয়ার নগ্ন প্রায় এই ছবিটি প্রকাশের মাত্র ২১ ঘন্টার মধ্যে হাজারের ওপর কমেন্ট পড়েছে। যার মধ্যে ৯৮ ভাগই গেছে স্পর্শিয়ার বিরুদ্ধে। ছবিটি আসলেই কি স্পর্শিয়ার? জানতে মুঠোফোনে শুক্রবার (আজ) সন্ধ্যা ৭টার দিকে কথা হয়।

তিনি বলেন, ‘হ্যাঁ এটা আমারই ছবি।’ বাকি প্রশ্নের সুযোগ না দিয়ে তিনি বলেন, ‘দেখুন এই ছবিটা নিয়ে আজ অনেক অনেক কথা হচ্ছে। ফেসবুকে সবাই যা তা বলছে। অনেকেই আমাকে ফোন দিচ্ছে। কিন্তু বিষয়টাকে নিয়ে সবাই ভুল বুঝছে। ছবিতে যা দেখা যাচ্ছে, বাস্তবতা কিন্তু তা নয়।’ একটু থেমে ঢোক গিলে দম নিয়ে স্পর্শিয়া আরও বলেন, ‘আমার সামনের অংশে কাপড় আছে। সেই ছবিটা আমি আপনাকে পাঠাচ্ছি। নিচের অংশেও কাপড় আছে। জাস্ট পিঠে গয়না রেখে ছবিটা টাইট ফ্রেমে তোলা হয়েছে। এতে নগ্নতার কিছু নেই’।

স্পর্শিয়া আরও জানান, গেল ২০ ঘন্টা ধরে ফেসবুকে ঝড় তোলা এই ছবিটি আরও দেড় দুই মাস আগে তোলা হয়েছে একটি সুইমিংপুলে। গয়না প্রতিষ্ঠানটির অনলাইন প্রচারনার জন্যই ছবিটি এভাবে তোলা হয়। তিনি বলেন, ‘এই ছবিটি আমি উক্ত প্রতিষ্ঠানকে না প্রকাশের অনুরোধ করেছি। তাছাড়া আমার নামে যে ফ্যানপেইজে ছবিটি প্রকাশ পেয়েছে, সেটা আমি চালাই না। কে চালায় জানিও না। সব মিলিয়ে আমার কাছে মনে হচ্ছে এই ছবিটা ইস্যু করে কেউ আমার সঙ্গে নোংরা রাজনীতি করছে।’

প্রসঙ্গত, ২০১১ সালে বিজ্ঞাপনচিত্রের মডেল হিসেবে মিডিয়ায় যাত্রা শুরু। একই বছর ‘অরুণোদয়ের তরুণদল’ নাটকে রকস্টার চরিত্রে অভিনয় করে আলোচিত হন। এখন মডেলিং আর অভিনয় নিয়ে দারুণ ব্যস্ত তিনি।

sporrr

sporshia1