মেইন ম্যেনু

হবু স্বামীকে মারধর করে হবু স্ত্রীকে ধর্ষনের চেষ্টা

চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় হবু স্বামীকে মারধর করে হবু স্ত্রীকে ধর্ষনের চেষ্ঠার ঘটনা ঘটেছে। শনিবার (৯ জুলাই) দুপুরে ঘটনার সাথে জড়িত এক জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। উপজেলার কোদালা ইউনিয়নের কোদালা চা বাগান এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে শনিবার রাতে ভিকটিমের মা বাদী হয়ে রাঙ্গুনিয়া থানায় মামলা দায়ের করেছে ।

অভিযোগে জানা যায়, শুক্রবার (৮ জুলাই) বিকাল ৫ টায় উপজেলার শিলক ইউনিয়নের নটুয়ার টিলা গ্রামের দাশ পাড়ার সুনীল ড্রাইভারের ১৮ বছর বয়সী মেয়ে ও তার হবু স্বামী রুপম দাশ, প্রতিবেশী এক এক বান্ধবী, ছেলে বন্ধু সঞ্জয় দে ও রাজিব কান্তি দে কোদালা চা বাগানে বেড়াতে যায়। চা বাগানের ভিতরে ম্যানেজারের বাংলোর পিছনে পুকুর পাড়ে তারা র্দীর্ঘক্ষন ধরে গল্প করছিল। এক পর্যায়ে একই ইউনিয়নের মিনা গাজীর টিলার মৃত আলতাফ মিয়ার পুত্র মো. নুরুল আজিম (২৮) ও তার সহযোগী ১০/১২ জন গিয়ে দেবী দাশের মেয়ের হবু স্বামীর সামনে হবু স্ত্রীসহ দুই তরুনীকে কু প্রস্তাক্ষ দেয়।

এসময় রুপম দাশ ও তার বন্ধুরা প্রতিবাদ করলে বখাটেরা তাদেরকে মারধর করে দুই তরুনীকে চা বাগানের নির্জন স্থানে নিয়ে গিয়ে দুই তরুনীর কাপড় টেনে ছিঁড়ে ফেলে ও ধর্ষনের চেষ্ঠা চালায়। রুপম দাশ ও অন্যদের শোর চিৎকারে এলাকার লোকজন এগিয়ে গেলে বখাটেরা পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে ভিকটিমের মা বাদী হয়ে আটক নুরুল আজিমসহ ১০ জনকে আসামী করে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। ঘটনার মূল হোতা মো. নুরুল আজিমকে শনিবার (৯ জুলাই) দুপুরে রাঙ্গুনিয়া থানার পুলিশ গ্রেফতার করে।

মামলার বাদী ভিক্টিমের মা দেবী দাশ জানান, আমার মেয়ে ও তার বান্ধবী চট্টগ্রাম শহরে গার্মেন্টসে চাকুরী করার সুবাধে চট্টগ্রাম শহরের বাসিন্দা রুপম দাশ ও সঞ্জয় দাশের সাথে পরিচয় হয়। রুপমের সাথে দেবী দাশের মেয়ের বিয়েও ঠিক হয়। ঈদের ২য় দিন চট্টগ্রাম শহর থেকে তারা বেড়াতে আসলে তাদেরকে নিয়ে কোদালা চা বাগানে বেড়াতে গেলে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানায়. ঘটনার সাথে জড়িত গ্র“পটি এলাকায় বিভিন্ন অপরাধমূলক কর্মকান্ডের সাথে জড়িত। বখাটে হিসেবে পরিচিত এলাকায় তারা মেয়েদের উক্তত্য করা , শ্লীলতাহানি ও ধর্ষনের ঘটনা ঘটিয়ে পার পেয়ে আসছিল।

রাঙ্গুনিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. হুমায়ুন কবির ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ধর্ষনের চেষ্ঠার ঘটনায় ১ জনকে আটক করা হয়েছে। বাকীদেরও গ্রেফতারের চেষ্ঠা চলছে।