মেইন ম্যেনু

‘হাততালি দেবেন না, আমরা উৎসব করতে আসিনি’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জনপ্রশাসন মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন, আমরা এখানে উৎসব করতে আসি নাই। আমরা বঙ্গবন্ধুকে স্মরণ করতে এসেছি। আপনারা কেউ তালি দেবেন না।

রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে জাতীয় শ্রমিক লীগ আয়োজিত শোক দিবসের আলোচনা সভায় মঙ্গলবার বিকেলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে শ্রমিক লীগ নেতাকর্মীদের উদ্দেশে তিনি এ সব কথা বলেন।

সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম বলেন, কে বলে বঙ্গবন্ধু নেই? এখনো তিনি বাংলাদেশের প্রতিটি মানুষের হৃদয়ে আছেন। তিনি এখনো জীবিত। আমাদের হৃদয় থেকে তিনি মরেননি। বঙ্গবন্ধুকে হত্যার মধ্যদিয়ে তার নাম ও আদর্শকে নিঃশেষ করে দেওয়ার পরিকল্পনা করা হয়েছিল। কিন্তু উনি তিলে তিলে মহান হয়ে উঠেছেন।

তিনি বলেন, গ্রামে-গঞ্জে এবার মানুষ প্রজেক্টরের মাধ্যমে তার প্রমাণ্যচিত্র দেখেছে। গ্রামের মানুষ তাকে প্রমাণ্যচিত্রের মাধ্যমে আবার আবিষ্কার করেছে। অনেকে চেয়েছিল বাংলাদেশের ইতিহাস থেকে বঙ্গবন্ধুকে মুছে ফেলবে। বঙ্গবন্ধুকে ইতিহাস থেকে মুছে ফেলবে এমন শক্তি পৃথিবীতে নেই।

জনপ্রশাসন মন্ত্রী বলেন, আমাদের শোককে শক্তিতে পরিণত করতে হবে। শেখ হাসিনা বাংলার তিন তিনবারের প্রধানমন্ত্রী। তিনি যে সব প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তা পালন করছেন। তার নেতৃত্বে আমাদের জীবদ্দশায় আমরা বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ে তুলতে পারব বলে আশা করি।

আশরাফ বলেন, আমরা সার্বজনীনভাবে বঙ্গবন্ধুর মৃত্যুবার্ষিকী পালনের আহ্বান জানিয়েছিলাম। এ আহ্বানে মিডিয়া স্বতঃস্ফূর্তভাবে সাড়া দিয়েছে। এ বছর যত লোক ধানমণ্ডিতে বঙ্গবন্ধুকে শ্রদ্ধা জানাতে গিয়েছে গত ১০ বছরেও তত লোক দেখিনি।

সংগঠনের সভাপতি শুক্কুর মাহমুদের সভাপতিত্বে সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন দলটির যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, শ্রম বিষয়ক সম্পাদক হাবিবুর রহমান সিরাজ প্রমুখ।