মেইন ম্যেনু

৬ দিন ধরে নিখোঁজ নাট্যকর্মী প্রলয়

নিখোঁজ হওয়ার ছয় দিনেও খোঁজ মিলেনি নাট্যকর্মী আরবাতুজ্জামান প্রলয়ের। আত্মীয় স্বজন ও পরিচিতজনের মধ্যে খোঁজ নিয়েও তার কোনো সন্ধান মেলেনি। প্রলয়কে না পেয়ে গভীর উৎকণ্ঠার মধ্যে সময় পার করছেন তার পরিবার।

প্রলয়ের পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, ২৬ জুলাই, সকাল সাড়ে ৮টায় বাচ্চাকে ফার্মগেটস্থ মর্নিং গ্লোরি স্কুলে পৌঁছে দিয়ে তার কর্মস্থল গুলশানস্থ ব্র্যাক ব্যাংকের প্রধান কার্যালয়ের উদ্দেশে যাওয়ার কথা ছিল। তবে ছেলেকে স্কুলে পৌছে দিলেও তিনি তার কর্মস্থলে যাননি।

প্রতিদিন অফিসে পৌঁছে পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। কিন্তু এদিন কারো সঙ্গেই যোগাযোগ করেননি প্রলয়। এমনকি তার মুঠোফোনও বন্ধ পাওয়া যায় বলে জানিয়েছেন তার পরিবার।

এ প্রসঙ্গে নিখোঁজ প্রলয়ের ছোট ভাই স্যামজামান বলেন, ‘আমরা আত্মীয় স্বজন ও পরিচিতজনদের মধ্যে খোঁজ নিয়েছি। কোথাও তার সন্ধান পাইনি। অনিশ্চয়তার মধ্যে দিন পার করছি। আপনারা কেউ আমার ভাইয়ের সন্ধান পেলে আমাদেরকে কিংবা আইন শৃঙ্খলা বাহিনীকে জানানোর অনুরোধ করছি।’

আইনগত কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করেছেন কিনা এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ‘২৬ জুলাই দিবাগত রাত ৩টার দিকে তেজগাঁও থানায় জিডি (নং- ১২৯৮) করেছি। ডিবি পুলিশ বলছে, ২৬ জুলাই সকাল ৮টা ৪৬ মিনিট পর্যন্ত প্রলয়ের মোবাইল ফোন সচল ছিল। এ সময় প্রলয় রাজধানীর ফার্মগেটের তেজতুরী বাজার এলাকায় অবস্থান করছিলেন। এরপর থেকে তার অবস্থান সম্পর্কে আর কোনো খবর জানা যায়নি।’

এ অবস্থায় পরিবারের পক্ষ থেকে প্রলয়ের সন্ধান চাওয়া হয়েছে। তারা বলছেন, প্রলয়ের খোঁজ পাওয়া মাত্রা তা যেনো তা আইন শৃঙ্খলারক্ষাকারী বাহিনীকে তা জানানো হয়।

নাগরিক নাট্যাঙ্গনের সদস্য প্রলয় ‘প্রাগৈতিহাসিক’, ‘পুষি বিড়াল ও একজন প্রকৃত মানুষসহ বেশ কিছু নাটকে অভিনয় করেছেন। এ ছাড়া বিভিন্ন সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ডের সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিলেন তিনি।