মেইন ম্যেনু

আবারও বারিধারায় ডুবলো শেখ রাসেল

sh-russel-l20161101214300

ব্যর্থতার শুরুটা হয়েছিল উত্তর বারিধারার কাছে হার দিয়ে। চট্টগ্রাম এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে বিগ বাজেটের দল শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রকে ১-০ গোলে হারিয়ে ফুটবল অঙ্গনকে চমকে দিয়েছিল উত্তর বারিধারা। এবার প্রিমিয়ার লিগে ফিরে আসা দলটি যে আরও চমক জমিয়ে রেখেছিল তা দেখালো দ্বিতীয় পর্বের শুরুতেই।

রাসেলকে এবার তারা হারালো আরও বড় ব্যবধানে। আজ(মঙ্গলবার) বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত রাতের ম্যাচে বারিধারা জিতেছে ৩-০ গোলে। এ হারে আবার পয়েন্ট (৮ পয়েন্ট) টেবিলের তলানিতে চলে গেল সাবেক চ্যাম্পিয়নরা। রাসেলকে ১২ নম্বরে নামিয়ে ১১ তে উঠলো রাশেদ হোসেন পাপ্পুর দল। ১২ ম্যাচে তাদের সংগ্রহ ৯ পয়েন্ট।

৬ পয়েন্ট নিয়ে প্রথম পর্ব শেষ করা বারিধারার সামনে ছিল রেলিগেশনের চোখ রাঙানি। তাইতো মধ্যবর্তী দলবদলে তারা পাল্টে ফেলে বিদেশি লাইনআপ। ব্রাজিলিয়ান লিওনার্দো লিমা, সেনেগালের কামারা, গিনির শিলা আর নাইজেরিয়ান ফেলেক্সকে নিয়ে তারা সাজায় বিদেশি লাইনআপ। তাতে দলটির শক্তি যে বেড়েছে সে প্রদর্শনী করলো দ্বিতীয় পর্বের প্রথম ম্যাচেই। রাসেলের জালে দেয়া ৩ গোলের দুটিই করেছেন ব্রাজিলের লিমা।

১২ মিনিটে সুজন চৌধুরির গোলে এগিয়ে যায় বারিধারা। ৬২ মিনিটে ব্যবধান বাড়ান লিমা। রাসেলের ডিফেন্ডার আতিকুর রহমান মিশু আড়াআড়ি পাস দিয়েছিলেন সতীর্থ নাসিরকে। কিন্তু লিমা দৌঁড়ে বলের নিয়ন্ত্রন নিয়ে ডিফেন্ডারদের পেছনে ফেলে পরাস্ত করেন রাসেলের গোলরক্ষককে। এ ব্রাজিলিয়ানই ৮৫ মিনিটে আরেকবার লজ্জা দেন সফিকুল ইসলাম মানিকের দলকে।

এবারও ডিফেন্ডারদের কাছ থেকে ছোঁ মেরে বল নিয়ে রাসেলের বক্সে ঢুকে পড়েন। অসহায় গোলরক্ষক জিয়াউর রহমান এগিয়ে এসে লিমাকে রুখতে গিয়ে ফেলে দেন। রেফারি পেনাল্টির নির্দেশ দিলে এ ব্রাজিলিয়ান নিজের দ্বিতীয় ও দলের তৃতীয় গোল করেন। বারিধারার কাছে আবার হেরে মাথা নিচু করে মাঠ ছাড়ে ব্লুজরা।