মেইন ম্যেনু

কিশোরগঞ্জে এক পরিবারের ৫ ভাইয়ের বাড়ী পুড়ে ছাই ॥ ক্ষয়ক্ষতি ১০লক্ষাধিক টাকা

magura-patkathi-factory-agun-pic-1

খাদেমুল মোরসালিন শাকীর,কিশোরগঞ্জ (নীলফামারী) প্রতিনিধি॥ নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার পুটিমারী ইউনিয়নের একই পরিবারের ৫ ভাইয়ের বাড়ী পূড়ে ছাই হয়েছে। ক্ষয়ক্ষতির পরিমান ১০লক্ষাধিক টাকারও বেশী বলে ধারণা করছেন ওয়ার্ড সদস্য মোঃ বাদশা মিয়া।
সরেজমিনে গিয়ে জানা গেছে,বুধবার রাত ৯ টার দিকে পুটিমারী ইউনিয়নের হাজীরহাট এলাকার মতুরারটারী গ্রামের মৃত্যু সুলতান আলীর ৫ ছেলের মধ্যে ২য় ছেলে বাদশা মিয়ার ঘরের বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাতের সৃষ্টি হয়। মূহুর্তের মধ্যে অন্যান্য ভাইয়ের বাড়ীতে আগুন ছড়িয়ে পড়লে এলাকাবাসী আগুন নিভানোর চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। খবর পেয়ে কিশোরগঞ্জ ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশনের কর্মীরা দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌছে আগুন নিয়ন্ত্রনে আনে। তবে সুলতান আলীর ৫ ছেলের বাড়ীর কোন কিছু রক্ষা করতে পারেনি সংশ্লিষ্ট এলাকাবাসী ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা। এদিকে বাড়ীর সব কিছু হারিয়ে পাগল প্রায় সুলতান আলীর ৫ ছেলে জহুরুল হক,বাদশা মিয়া,আনারুল হক,সানারুল ইসলাম ও আজহারুল ইসলাম। এ ব্যাপারে পুটিমারী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু সায়েম লিটন বলেন,ঘটনাস্থলে গিয়ে আমি নিজেই হতবম্ব হয়েছি। তবে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ঘটনাস্থলে রাতে কেউ পরিদর্শন করেনি। পুটিমারী ১নং ওয়ার্ড সদস্য বাদশা মিয়া বলেন,বর্তমানে আলু রোপনের সময়। পুটিমারীর মানুষ বাৎসরিক চাষাবাদের মওসুম হিসাবে আগাম জাতের আলু চাষ করে থাকেন। আর সুলতান আলীর ৫ ছেলের ঘরে আলু বীজ ছিল যা আগুনে পূড়ে ছাই হয়ে গেছে। এ ব্যাপারে কিশোরগঞ্জ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের ষ্টেশন অফিসার রেদওয়ানুজ্জামান বলেন,খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে দ্রুত পৌছে আগুন নিয়ন্ত্রনে আনা হয়েছে। তবে ধান,চালসহ বেশ কিছু ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে এবং কোন গবাদি পশু পূড়ে যাওয়ার তথ্য পাওয়া যায়নি।