মেইন ম্যেনু

জননী মাকে বাঁচাতে তরুণীর নিজেকে বিক্রির বিজ্ঞাপন

মাকে ভালোবেসে আমরা কত কিছুই না করি। মায়ের জন্য অনেক সন্তান নিজেকে উৎসর্গ করেন এমন উদাহরণও আছে। সম্প্রতি মায়ের চিকিৎসার খরচ জোগাতে নিজেকে বিক্রির বিজ্ঞাপন দিয়েছেন এক তরুণী। এ ঘটনায় তোলপাড় শুরু হয়েছে চীনের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। আলোচিত এই তরুণীর নাম কাও মেনজিউয়াং।

ইতিমধ্যেই শুরু হওয়া এ বিতর্কে অনেকে কাওয়ের সঙ্গে সহমত পোষণ করলেও অনেকেই দ্বিমত করেছেন। আবার পুরো ব্যাপারটি কড়া ভাষায় সমালোচনাও করেছেন অনেকে। স্থানীয় গণমাধ্যম বলছে, দক্ষিণ চিনের গ্যঝাং শহরের মেয়ে তিনি। সম্প্রতি কাওয়ের মায়ের ত্বকে ক্যানসার ধরা পড়ে। তিনি গ্যঝাংয়ের সাধারণ হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। এরই মধ্যে তার ডান উরুতে গভীরভাবে জীবাণুর সংক্রমণ ঘটেছে। ডাক্তারদের মতে, কাওয়ের মাকে আরও বড় হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা বাঞ্ছনীয়। কাওয়ের মায়ের কোনো স্বাস্থ্য বীমা করা নেই। চিকিৎসার জন্য এখনই দরকার ৩৫ লাখ ইউয়ান।

কাওয়ের পক্ষে এত টাকা জোগাড় করা সম্ভব নয়। সংসারের দায়িত্ব তার ওপরেই। এ অবস্থায় কাও সামাজিক মাধ্যমে নিজের যৌন আবেদনময়ী ছবি পোস্ট করে লিখেছেন, ‘কোনো সহৃদয় ব্যক্তি টাকার বিনিময়ে আমাকে কিনে নিন। তাহলেই আমি মায়ের চিকিৎসা করাতে সক্ষম হবো। অর্থ পাওয়ার পর আমি ওই ব্যক্তির ইচ্ছেমতো চলব। তিনি যা বলবেন, আমি তাই করব। আমি যা বলেছি তার অন্যথা হবে না। যিনি আমাকে সবচেয়ে বেশি টাকা দেবেন, আমি তার কাছেই নিজেকে বিক্রি করব।’

সর্বশেষ পাওয়া খবরে জানা গেছে, মায়ের চিকিৎসার ব্যয়ভার বহনে একজন সহৃদয় ব্যক্তির সন্ধান মিলেছে। আপাতত কাও মেনজিউয়াংকে নিজেকে এভাবে বিক্রির প্রয়োজন পড়ছে না।