মেইন ম্যেনু

ডিমলা হাসপাতালের ভ্যাকসিন পোর্টার উজ্জল কুমার পরলোক গমন

Dead1462099210

হামিদা আক্তার, ডিমলা (নীলফামারী) প্রতিনিধি : নীলফামারীর ডিমলা ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালের কর্মরত ভ্যাকসিন ক্যারিয়ার বহনকারী পোর্টার শ্রী উজ্জল কুমার রায় এহ জগতের মায়া ত্যাক করে পর জগতে গমন করেছেন। তার এ অকাল মৃর্ত্যুতে পুরো উপজেলায় জুড়ে শুভাকাঙ্গীতে মাঝে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। তিনি গত মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১২টার দিকে ভ্যাকসিন ক্যারিয়ার বহনরে সময় উপজেলার ডিমলা টু রংপুর রোড়ের তমিজ উদ্দিননের বাড়ী সংলগ্ন মোড়ে (সরদার হাট) নামক স্থানে রাস্তা থেকে ছিটকে পড়ে একটি পাকা ওয়ালের সাথে ধাক্কা লেগে পড়ে যায়।

এ সময় তিনি মাথায় প্রচন্ড আঘাত পান। পরে তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেই চিকিৎসাধীন থেকে তিনি বুধবার সকাল ৯ ঘটিকার সময় এ কালের শেষ নি:শ্বাস ত্যাক করে পরোলোক গমণ করেন।

উল্লেখ্য, দীর্ঘ প্রায় ৩০ বছর ধরে ডিমলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চুক্তি ভিক্তিক ভ্যাকসিন পরিবহনকারী ”পোর্টার” হিসেবে চাকুরী করে আসছিল। তিনি দক্ষিন তিতপাড়া (মেডিকেল মোড়) গ্রামের মৃত শ্রী ক্ষেত্র মহন রায়ের পুত্র। তার মৃর্ত্যুকালে তার সহধর্মীনি ও ১ ছেলে, ১ মেয়ে এবং অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন। তিনি মেডিকেল মোড় এলাকায় ও উপজেলার সবত্রই জনপ্রিয় ব্যাক্তি ছিলেন। তিনি তার কর্মজীবনে বিভিন্ন সাংস্কৃতিক ও সমাজ উন্নয়ন মূলক কাজে জড়িত থেকে নি:স্বার্থ ভাবে কাজ করে গেছেন। তিনি র্সাস্কুতি অংগনে অপরিসীম ভূমিকা পালন করেছেন।

এছাড়াও তিনি ম্যারেজ মেকার (ঘটক) হিসেবে খুবই জনপ্রিয় ছিলেন। তার জীবদ্দশায় প্রায় আড়াই হাজার হিন্দু ও মুসলিম বিবাহ সম্পন্নে মুখ্য ভূমিকা পালন করেছেন। তিনি সর্বদা হাসি খুশি থাকতেন। তার এ অকাল মৃর্ত্যুতে উপজেলার সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন সমুহ, রাজনৈতিক ব্যাক্তিবর্গ, সাংবাদিকবৃন্দ, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ, হিন্দু সম্প্রদায়ের সকল স্তরের সংগঠন সমূহ, সুশীল সামজসহ সর্বস্তরের মানুষজন তার শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন। পারিবারিক ভাবে জানানো হয়েছে আজ বিকাল ৫ ঘটিকায় তার মৃত দেহের শেষ কীর্ত্য সম্পন্ন করা হবে।