মেইন ম্যেনু

তিমি মাছের ৮০ কেজি বমি পেয়ে বেজায় খুশি ৩ জেলে

blue whale

৮০ কেজি তিমির বমি পেয়ে বেজায় খুশি ওমানের খালিদ আল সিনানি ও তার দুই সঙ্গী৷ এ যেন আলাদিনের আশ্চর্য প্রদীপ৷ ২০ বছর ধরে ওমানের সমুদ্রে ভেসে বেড়ানোর ফল তারা পেয়েছেন অক্টোবর মাসের ২০ তারিখই৷ এতেই লুকিয়ে রয়েছে সাত রাজার ধন৷

কেন? কারণ ভাসমান তিমির বমি অতি বিরল বস্তু৷ যা কালে ভদ্রে নিরক্ষীয় এলাকায় গভীর সমুদ্রে পাওয়া যায়৷ মোমের মতো এই তরল তিমির শুক্রানুর সঙ্গে মিশে অন্ত্রের মধ্য দিয়ে নিঃসৃত হয়৷ তরল অবস্থায় এর থেকে বিকট গন্ধ বের হয়৷ কিন্তু শুকিয়ে গেলেই এর সুগন্ধ ছড়িয়ে পড়ে চারদিকে৷ সুগন্ধীর বাজারে এই কারণেই মহামূল্যবান তিমির বমি৷

২০ তারিখ তিন বন্ধুকে নিয়ে ওমানের কুরায়ত এলাকায় মাছ ধরতে গিয়েছিলেন খালিদ৷ তখনই বিকট গন্ধ নাকে আসে৷ জলে ভাসমান ঘন তরল দেখে চিনতে ভুল হয়নি দক্ষ জেলের৷ সঙ্গে সঙ্গে তা তুলে নিয়ে আসেন৷ দু’দিন পর থেকেই দুর্গন্ধ যখন সুগন্ধে রূপান্তরিত হয়, তখন আর খুশির ঠিকানা ছিল না তিন বন্ধুর৷ ৮০ কেজি তিমির বমি নিজেদের মধ্যে ভাগ করে নিয়েছেন তিন বন্ধু৷ বাজারে বাংলাদেশী মুদ্রায় যার মূল্য প্রায় ২০ কোটি টাকা৷ সংবাদ প্রতিদিন