মেইন ম্যেনু

হিন্দু সম্প্রদায়ের নিরাপত্তা চেয়ে রিট

brahmanbaria-awamileague-news_04-11-2016-update

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরসহ সারাদেশের হিন্দু সম্প্রদায়ের নিরাপত্তা বিধানের নির্দেশনা চেয়ে উচ্চ আদালতে রিট করা হয়েছে। আইন ও সালিশ কেন্দ্র (আসক) রোববার হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিটটি করে।

রিটে স্বরাষ্ট্র সচিব, জনপ্রশাসন সচিব, নাসিরনগর থানার অফিসার্স ইনচার্জ (ওসি), উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাসহ (ইউএনও)৮ জনকে বিবাদী করা হয়ছে।

রিটে হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজনের মন্দির ও বাড়িঘরে হামলা, লুটপাট এবং অগ্নিসংযোগের ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে কী পক্ষেপে নেওয়া হয়েছে প্রতিবেদন আকারে তা দাখিলের নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে। এছাড়া ওই ঘটনারোধে বিবাদীদের ব্যর্থতাকে কেন অবৈধ ঘোষণা করা হবে না তা জানতে চাওয়া হয়েছে।

সেই সঙ্গে ওসি ও ইউএনও কোন কর্তৃত্ববলে অনুষ্ঠিত র‌্যালিতে অংশগ্রহণ করেছিলেন তার ব্যাখ্যা চাওয়া হয়েছে।

মুসলমানদের পবিত্র কাবাঘরের প্রতি অবমাননাসূচক এক ছবি ফেসবুকে পোস্ট করেছে রসরাজ দাস নামে স্থানীয় এক হিন্দু যুবক – এই অভিযোগকে কেন্দ্র করে গত ৩০ অক্টোবর, রোববার নাসিরনগরে হিন্দুদের বাড়িঘর ও মন্দিরে হামলার ওই ঘটনা ঘটে। রসরাজ দাসকে গত শুক্রবার (৪ নভেম্বর) গ্রেফতার করে পুলিশ। ওইদিন পুনরায় হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজনের বাড়িতে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার ভিডিও ফুটেজ দেখে এ পর্যন্ত ৫৩জনকে গ্রেফতার করেছে নাসিরনগর থানা পুলিশ।